স্কুটির পিছনে লরির ধাক্কায় মৃত ১

551

বর্ধমান: বেপরোয়া গতির লরির ধাক্কায় মৃত্যু হল এক স্কুটি আরোহীর। গুরুতর জখম হয়েছেন স্কুটির অপর এক আরোহী। বুধবার দুপুরে ২ নম্বর জাতীয় সড়কের পূর্ব বর্ধমানের মেমারি থানার পালসিট ওভারব্রীজ সংলগ্ন এলাকার ঘটনা। পুলিশ দুর্ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে।

পুলিশ সূত্রে জানাগিয়েছে, মৃত ব্যক্তির নাম দুলাল মজুমদার ২২)। গুরুতর জখম হয়েছে তাঁর বন্ধু রাজদীপ দাস। দু’জনেরই বাড়ি মেমারির পশ্চিম রসুলপুর গ্রামে। পরিবার সদস্যরা জানিয়েছেন, ফুটবল খেলা দেখতে যাচ্ছি বলে জানিয়ে দুই বন্ধু এদিন বেলায় স্কুটি চেপে বাড়িথেকে রওনা হয়।

- Advertisement -

প্রত্যক্ষদর্শীরা বলেন, স্কুটি আরোহীরা এদিন দুপুরে ২ নম্বর জাতীয় সড়ক ধরে শক্তিগড়ের দিক থেকে রসুলপুরের দিকে যাচ্ছিল। ওই সময়ে একই লেন ধরে বেপরোয়া গতিতে আসা একটি লরি স্কুটি আরোহীদের পিছনে সজোরে ধাক্কা মারে। দুলাল মজুমদার লরির চাকার নিচে ছিটকে পড়ে পিষ্ট হয়ে যায়। অপর স্কুটি আরোহী ছিটকে গিয়ে লরিটি নিচের অংশে আটকে যায়। সেই অবস্থায় লরি চালক গতি নিয়ন্ত্রণ করতে না পেরে রাজদীপকে প্রায় ৫০ ফুট টেনে নিয়ে যায়। পরে লরি নিয়ে পালায় চালক।

খবর পেরে পালসিট ফাঁড়ির পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। পুলিশ ও স্থানীয়রা আশঙ্কা জনক অবস্থায় দু’জনকে উদ্ধার করে বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুলাল মজুমদারকে মৃত ঘোষণা করেন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় রাজদীপ বর্ধমান হাসপাতালেই মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন। দুর্ঘটনার তদন্তে নেমে পুলিল ঘাতক লরির খোঁজ চালানো শুরু করেছে।