করোনায় মৃত্যু পুলিশকর্মীর, নতুন করে আক্রান্ত ৩ ওসি সহ আরও ৪০

388

কলকাতা ও ক্যানিং: কলকাতা পুলিশের আরও এক কর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেলেন। মৃত ওই পুলিশকর্মীর নাম দীপঙ্কর সরকার (৪৫)। উত্তর ২৪ পরগনার বারাসাতের বাসিন্দা দীপঙ্করবাবুর স্ত্রী একজন স্কুল শিক্ষিকা। তাদের একটি ১১ ও অপর একটি ৩ বছরের সন্তান রয়েছে। শনিবার রাতে তাঁর মৃত্যু হয়।

অন্যদিকে, দক্ষিণ ২৪ পরগনা বারুইপুর পুলিশ জেলার জীবনতলা, ঢোলার হাট ও কাশিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসারেরা করোনা আক্রান্ত হয়েছেন বলে জেলা পুলিশ সূত্রে খবর। সেই সঙ্গে জেলার আরও ৪০ পুলিশকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তাদের হাসপাতলে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়া তাদের সংস্পর্শে যারা এসেছিলেন তাদের হোম আইসোলেশনে রাখা হয়েছে।

- Advertisement -

কলকাতা পুলিশ সূত্রের খবর, দীপঙ্করবাবু কিছুদিন ধরেই জ্বরে ভুগছিলেন। লালার নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছিল কিন্তু তখন রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছিল। এরপরও তিনি সুস্থ না হলে ভর্তি করা হয় পার্কস্টিটের একটি নার্সিংহোমে। সেখানে তার পজেটিভ রিপোর্ট আসলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ অন্যত্র কোনও কোভিড হাসপাতালে স্থানান্তরিত করার কথা বলেন। তাকে সেখান থেকে স্থানান্তরিত করা হয় গুড সামারিটান নামে অপর একটি বেসরকারি নার্সিংহোমে।

কিন্তু সেখানে তার অবস্থার অবনতি ঘটলে তাকে অ্যাপোলো হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। সেখানেই শনিবার রাতে মৃত্যু হয় ওই পুলিশকর্মীর। ওই হাসপাতালে তার চিকিৎসার বিল গিয়ে দাঁড়িয়েছে সাড়ে ১৫ লক্ষ টাকা। চাপে পড়ে তার স্ত্রী অর্ধেক বিল মিটিয়েছেন। বাকি বিলের জন্য হাসপাতালের পক্ষ থেকে চাপ দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। তবে পুলিশের ওপর মহলের চাপে অবশেষে অর্ধেক বিল বাকি রেখেই দীপঙ্করের দেহটি কলকাতা পুরসভার হাতে সৎকারের জন্য তুলে দেওয়া হয় হাসপাতালের পক্ষ থেকে। হাসপাতাল সূত্রে খবর, পুলিশের পক্ষ থেকে তাদের বাকি বিল মিটিয়ে দেওয়ার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।