স্কুল সংস্কারে ১০৯, পুজো অনুদানে ২০১ কোটি বরাদ্দ রাজ্যের

345
ছবি: সংগৃহীত।

কলকাতা: পুজোর পর স্কুল খোলার প্রস্তুতি চলছে। তাই রাজ্যে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল সারাইয়ের জন্য ১০৯ কোটি টাকা বরাদ্দ করল সরকার। পাশাপাশি দুর্গাপুজো উপলক্ষ্যে ক্লাব এবং পুজো কমিটিগুলিকে ৫০ হাজার টাকা করে অনুদান দেওয়ার জন্য এবছর ২০১ কোটি ৯১ লক্ষ টাকা অনুমোদন করল রাজ্য অর্থ দপ্তর।

নবান্নে আগেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ঘোষণা করেছিলেন, পুজোর পর একদিন অন্তর স্কুল-কলেজ খোলার পরিকল্পনা চলছে। সেই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়িত হতে চলেছে। দীর্ঘদিন ধরে স্কুল বন্ধ থাকায় অনেক স্কুলেরই পরিকাঠামো ঠিক নেই। তাই সংস্কারের জন্য ১০৯ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে। রাজ্যে ৬,৪৬৮টি মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক স্কুল মেরামতির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, পুজোর পর স্কুল খোলার ব্যবস্থা করা হচ্ছে। স্কুলে ক্লাসগুলিকে সোম-বুধ-শুক্র এবং মঙ্গল-বৃহস্পতি-শনি এই ছয়দিনে ভাগ করে দেওয়া হয়েছে। কোনও স্কুল আবার ক্লাসগুলিকে একই দিনে দু’ভাগে ভেঙে পঠনপাঠনের পরিকল্পনা রয়েছে। দশম ও দ্বাদশ শ্রেণির সিলেবাস ৩০ শতাংশ কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রথম ভাগের জন্য পরীক্ষা হবে ডিসেম্বরে। দ্বিতীয় ভাগের জন্য পরীক্ষা হবে আগামী বছর মার্চে। সেইসময় যদি করোনার তৃতীয় ঢেউ চলে আসে, তবে ডিসেম্বরের পরীক্ষার গড় ফলের ভিত্তিতে মূল্যায়ন হবে। অন্যদিকে, ক্লাব এবং পুজো কমিটিগুলিকে দুর্গাপুজোর অনুদান বাবদ এবছর ২০১ কোটি ৯১ লক্ষ টাকা অনুমোদন করল রাজ্য অর্থ দপ্তর। প্রতিটি ক্লাবকে মোট ৫০ হাজার টাকা করে দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। মোট ৪০৩৮২টি ক্লাব ও পুজো কমিটিকে দেওয়া হবে এই টাকা। এর মধ্যে ৩৭,৩৮২টি ক্লাব ও পুজো কমিটি রাজ্যে পুলিশ এলাকার অন্তর্গত। ৩০০০টি কলকাতা পুলিশ এলাকায় পড়ছে। রাজ্য পুলিশ মোট ১৮৬ কোটি ৯১ লক্ষ টাকা এবং কলকাতা পুলিশ ১৫ কোটি টাকা বন্টন করবে। প্রশাসনিক আধিকারিকদের মাধ্যমে এই টাকা বিলি করা হবে।

- Advertisement -