২৭০০ বোতল বিদেশি মদ উদ্ধার, গ্রেপ্তার ২

94

কিশনগঞ্জ: কিশনগঞ্জ জেলায় পুলিশ ও আবগারি কর্মীদের শত শত চেস্টায় মদ এই করিডর দিয়ে মদ পাচার বন্ধ হচ্ছে না বলে অভিযোগ। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় জেলার পুলিশ সুপার কুমার আশীষ এক সাংবাদিক বৈঠক করে জানান, এদিন দুপুরে জেলার কোচাধামন থানার পুলিশ চারঘরিয়া আবগারি চেকপোস্টে নাকা চেকিংয়ের সময় একটি ট্রাকের থেকে ১৩৫০ লিটার বিদেশি মদ উদ্ধার করেছে। এই মদ পাচারে অভিযুক্ত দুইজন চোরাচালানি মনীশ কুমার ও অজয় কুমারকে পুলিশ ঘটনাস্থলে গ্রেপ্তার করেছে। এছাড়া পুলিশ ট্রাক সহ ধৃতদের থেকে ২ মোবাইল, নগদ ২১০০ টাকা বাজেয়াপ্ত করে।

অপরদিকে, কোচাধামন থানার ওসি সুমন কুমার সিং জানান, এই প্রচুর পরিমানে মদ অসম থেকে বিহারের বৈশালীতে পাচার করা হচ্ছিল। কিন্তু কিশনগঞ্জ করিডরের চারঘরিয়া আবগারি চেকপোস্টের নাকা চেকিংয়ে এ ধরা পড়ে যায়। এইদিন দুপুরে পানীয় জলের প্লাস্টিকের বোতলের কার্টনের নীচে ত্রিপল চাপা দিয়ে ,প্লাস্টিকের বস্তায় প্রচুর কাটনে ভরে ১৩৫০ লিটার মদ পাচার করছিল। এই সংবাদ লেখা পর্যন্ত পুলিশ প্রায় ২৭০০ বড় বিদেশি মদের বোতল বাজেয়াপ্ত করেছে। সুমনবাবু জানান, ট্রাকটি জাতীয় সড়ক দিয়ে বাহাদুরগঞ্জের দিক দিয়ে আসছিল। আর চারঘরিয়া আবগারি চেকপোস্টের নাকা চেকিংয়ে ধরা পড়ে যায়। ১৫০টি কার্টনে এই মদ, ট্রাকটিতে পানীয় জলের কার্টনের নীচে ত্রিপল চাপা দিয়ে অসম থেকে বিহারের বৈশালীতে পাচার করা হচ্ছিল বলে পুলিশ সুপার কুমার জানান।

- Advertisement -

অপরদিকে পুলিশ সুপার জানান, কিশনগঞ্জ পুলিশ ২৪ ঘন্টা দুটি জাতীয় সড়কে মদ পাচার ধরার জন্য নাকা চেকিং চালাচ্ছে। আর এরফলে প্রায় প্রতিদিন প্রচুর পরিমানে মদ কিশনগঞ্জ করিডরে ধরা পড়েছে।যদিও মদ পাচারকারীরা নিত্যনতুনভাবে পাচারের টেকনিক বদলাচ্ছে।কিনতু পুলিশের  সতর্কতার ফলে ধরা পড়ে যাচ্ছে। এইদিন মদ পাচারের অভিযোগে ধৃতদের শুক্রবার কিশনগঞ্জ আদালতে পেশ বা তোলা হবে বলে পুলিশ সূত্রে খবর।