কিশোরী অপহরণের অভিযোগে গ্রেপ্তার ৩

316

বর্ধমান: এক কিশোরীকে অপহরণের অভিযোগে তিনজনকে গ্রেপ্তার করল পুলিশ। ধৃতরা মাথুর বাউড়ি, তারক ক্ষেত্রপাল ও স্বরূপ বাউড়ি। ধৃতদের মধ্যে তারকের বাড়ি পূর্ব বর্ধমানের রায়না থানার মিরেপোতা বাজার এলাকায়। বাকি দুই ধৃত বাঁকুড়া জেলার পাত্রসায়ের থানার নাড়িচা গ্রামের বাষিন্দা। রায়না থানার পুলিশ শুক্রবার রাতে তিনজনকে তাদের বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করেছে। অপহরণের ধারায় মামলা রুজু করে পুলিশ শনিবার তিন ধৃতকেই বর্ধমান আদালতে পেশ করে। অপহরণের ঘটনায় মূল অভিযুক্ত মাথুরের পলাতক ছেলের হদিস পেতে তদন্তকারী অফিসার ধৃতদের ৫ দিন নিজেদের হেপাজতে নিতে চেয়ে আদালতে আবেদন জানান। ভারপ্রাপ্ত সিজেএম তিন ধৃতকেই ৩ দিনের পুলিশি হেপাজতে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছেন।

পুলিশ জানিয়েছে, অপহৃত বছর ১৫ বয়সী কিশোরীর বাড়ি রায়নার থানার বাজিতপুর গ্রামে। কেনাকাটা করতে সে গত বুধবার বেলা ১০টা নাগাদ স্থানীয় মিরোপোতা বাজারে যায়। তার পরথেকে পরিবারের লোকজন ওই কিশোরীর আর কোনও হদিস পাচ্ছেছিলেম না। নানা ভাবে খোঁজ চালিয়ে কিশোরীর অবিভাবকরা জানতে পারেন, তারক ও তার স্ত্রী ছাড়াও মিলন ও তার স্ত্রী ও দুই ছেলে মিলে কিশোরীকে অপহরণ করে নাড়িচায় আটকে রেখেছে। এরপরই কিশোরীর বাবা রায়না থানায় অভিযোগ দায়ের করেন। তদন্তে নেমে পুলিশ তিনজনকে গ্রেপ্তার করে হেপাজতে নিয়ে কিশোরী ও মূল অভিযুক্তর খোঁজ চালাচ্ছে।

- Advertisement -