অবৈধভাবে ট্র্যাক্টরে বালি পাচার করতে গিয়ে গ্রেপ্তার ৩

94

বর্ধমান: অবৈধভাবে নদী থেকে ট্র্যাক্টরে বালি বোঝাই করে পাচার করতে গিয়ে গ্রেপ্তার তিন ট্র্যাক্টর চালক। মঙ্গলবার পূর্ব বর্ধমানের নাদনঘাট থানার পুলিশ তিন জন ট্র্যাক্টর চালকে গ্রেপ্তার করে। একইসঙ্গে পুলিশ বালি বেঝাই তিনটি ট্র্যাক্টরও বাজেয়াপ্ত করেছে। পুলিশ সূত্রে খবর, ধৃতরা হল আমিরুল শেখ, মধু বাগ ও আসাদুল শেখ। নাদনঘাট থানার বিভিন্ন গ্রামের বাসিন্দা। বুধবার সুনির্দিষ্ট ধারায় মামলা রুজু করে পুলিশ ধৃতদের কালনা মহকুমা আদালতে পেশ করে। বিচারক ধৃতদের ২ দিনের পুলিশি হেপাজতের নির্দেশ দিয়েছেন।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, নাদনঘাট থানার পুলিশ মঙ্গলবার হেমাতপুর জোড়া ব্রিজ পয়েন্টের কাছে নাকা চেকিং চালাচ্ছিল। সেসময় নদীয়ার দিক থেকে নাদনঘাটের দিকে আসছিল সাদা বালি বোঝাই তিনটি ট্র্যাক্টর। নাকা চেকিংয়ে থাকা পুলিশ আধিকারিকরা ট্র্যাক্টরগুলি দাঁড় করানোর কথা বললে চালক গতি বাড়িয়ে পালানোর চেষ্টা করে। এরপরই পুলিশ পিছু ধাওয়া করে ৩টি ট্র্যাক্টরই আটকায়। চালকদেরও ধরে ফেলে পুলিশ। বালি বহন সংক্রান্ত বৈধ কোনও কাগজপত্র চালকরা দেখাতে না পারায় তিন ট্র্যাক্টর চালককে গ্রেপ্তার করে। আংশিক লকডাউনের দিনগুলিতে নদী থেকে বালি তোলার কাজে নিষেধাজ্ঞা রয়েছে। তা সত্ত্বেও কীভাবে পাচারের জন্য ট্র্যাক্টরে বালি বোঝাই করা হয়েছিল তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

- Advertisement -