বাড়ি পাঠানো হল কোটা ফেরত ৩৮ জন পড়ুয়াকে

380

নীহাররঞ্জন ঘোষ, মাদারিহাট: আতঙ্কের অবসান শেষে কোটা ফেরত ৩৮ জন পড়ুয়াকে বাড়ি পাঠানো হল। সোমবার নিজের বাড়িতে ফিরলেন পড়ুয়ারা।

রাজ্য সরকার কোটা থেকে তাঁদের বাড়ি ফেরানোর ব্যবস্থা করলে গত শুক্রবার তাঁরা মাদারিহাটে এসে পৌঁছান। সেদিনই তাঁদের মাদারিহাটের কোয়ারান্টিন সেন্টারে নিয়ে যাওয়া হয়। শনিবার তাঁদের লালারসের নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। কাল করোনা রিপোর্ট এসে পৌঁছালে রিপোর্ট নেগেটিভ আসায় প্রশাসনের তরফে তাঁদের বাড়ি পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। যদিও তাঁদের ১৪দিনের হোম কোয়ারান্টিনে থাকার কথা বলা হয়েছে।

- Advertisement -

আরও পড়ুন: হাসিমারা ফেরত পরিবারকে নিয়ে কোচবিহারে চাঞ্চল্য

কোয়ারান্টিন সেন্টারে থাকা পড়ুয়ারা জানান, তাঁরা সকলে রিপোর্ট নিয়ে খুব আতঙ্কে ছিলেন। বন্দিদশা থেকে মুক্ত হলেন। পাশাপাশি তাঁরা জানান, স্থানীয় প্রশাসনের তরফে তাঁদের সবরকম সহযোগিতা করা হয়েছে। খুব ভালো করে তাঁদের রাখা হয়েছিল।

এই বিষয়ে মাদারিহাট ব্লক মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক ডাঃ দেবজ্যোতি চক্রবর্তী জানিয়েছেন, ২৮ দিন হোম কোয়ারান্টিনে থাকতে হবে তাঁদের। এরমধ্যে ১৪ দিন পুরোপুরি হোম কোয়ারান্টিনে এবং বাকি ১৪ দিন দূরত্ব বজায় রেখে কিছু জরুরী প্রয়োজনে বাড়ির বাইরে আসতে পারবেন তাঁরা।

মাদারিহাটের বিডিও শ্যারণ তামাং জানিয়েছেন, ৩২ জন ছাত্র ও ৬ জন ছাত্রীকে মাদারিহাটের কোয়ারান্টিন সেন্টারে রাখা হয়েছিল। শনিবার তাঁদের লালারসের নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানোর পর গতকাল রাতে তাঁদের সকলের রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। সেইজন্য সরকারি নিয়ম মেনে আজ তাঁদের সকলকে নিজেদের বাড়িতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। প্রশাসনের ভূমিকাকে কুর্নিশ জানিয়ে বাড়ি ফেরার আনন্দে উল্লসিত পড়ুয়ারা।