যুবকের মাথা খুবলে খেল ভালুক, যা হল তারপর….

55

চালসা: ভালুকের হানায় মৃত্যু হল যুবকের। পরে পালটা হামলায় মারা গেল ভালুকটিও। বুধবার দুপুরে মেটেলি ব্লকের মেটেলি চা বাগানের ১৩ নম্বর সেকশনের ঘটনা। মৃত যুবকের নাম দীবেশ খালকো (১৮)। বুধবার সকালে প্রতিদিনের মতো চা বাগানে কাজ করার সময় শ্রমিকরা ভালুকটিকে দেখতে পান। সেটিকে দেখামাত্রই গোটা বাগানে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। খবর পেয়ে বাগানে যায় খুনিয়া স্কোয়াডের বনকর্মী ও মেটেলি থানার পুলিশ। সেই সঙ্গে ভালুক দেখতে ভিড় করে বহু মানুষ। এরইমধ্যে দুপুর নাগাদ আচমকাই দীবেশ খালকোর উপর হামলা চালায় ভালুকটি। যুবকটির মাথা খুবলে খায় ভালুক। জানা গেছে মা অসুস্থ থাকায় তাকে দেখতে এসেছিল একাদশ শ্রেণীর ওই পড়ুয়া। ঘটনার পর উত্তেজিত জনতা পিটিয়ে মারে সেই ভালুকটিকে। পরিস্থিতি রীতিমতো হাতের বাইরে চলে যায়। পরবর্তীতে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয় মালবাজারের মহকুমা পুলিশ আধিকারিক রবিন থাপার নেতৃত্বে বিশাল পুলিশবাহিনী।

মৃতের জেঠিমা যমুনা খালেকো বনদপ্তরের বিরুদ্ধে ক্ষোভ উগরে দিয়ে জানান, সকাল ১০টা থেকে ভালুকটি বাগানে ঘোরাঘুরি করলেও সেটাকে জঙ্গলে ফেরত পাঠাতে পারেননি বনকর্মীরা। বন দপ্তরের খুনিয়া রেঞ্জের রেঞ্জার রাজকুমার লায়েক জানান, খবর পাওয়ার পরই ভালুকটিকে নেওড়াভ্যালির জঙ্গলে পাঠানোর চেস্টা করা হয় কিন্তু অতিরিক্ত ভিড়ের জন্য সমস্যা হচ্ছিল। বন দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, ভালুকটি হিমালয়ান ব্ল্যাক বিয়ার প্রজাতির পূর্ণবয়স্ক পুরুষ। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী মৃতের পরিবার ক্ষতিপূরণ পাবে।

- Advertisement -