মাদক মামলায় গ্রেপ্তার হতে পারেন অভিনেতা অর্জুন রামপাল

140

মুম্বই: মাদক মামলায় ১৫ ডিসেম্বর দ্বিতীয়বার সমন পাঠানো হয়েছিল বলিউড অভিনেতা অর্জুন রামপালকে। ১৬ ডিসেম্বর অভিনেতার এনসিবি দপ্তরে হাজিরা দেওয়ার কথা থাকলেও হাজিরা দেওয়া থেকে অব্যবহতি চেয়েছিলেন তিনি। অভিনেতা জানিয়েছিলেন, ২০ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনি নারকোটিক্স কন্ট্রোল ব্যুরোর দপ্তরে উপস্থিত হতে পারবেন না। অবশেষে, সোমবার এনসিবির মুম্বই কার্যালয়ে হাজিরা হন অর্জুন। এরপরেই এনসিবি সূত্রে খবর, গ্রেপ্তার করা হতে পারে অর্জুন রামপালকে। অভিনেতা এনসিবিকে একটি ডাক্তারের একটি প্রেসক্রিপশন দিয়েছিলেন। যদি সেটি জাল বলে প্রমাণিত হয়, তবে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হবে।

প্রসঙ্গত, গত ১৪ জুন অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর ছয় মাস পূর্ণ হল। মুম্বইয়ের বান্দ্রার ফ্ল্যাট থেকে তাঁর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। এদিকে সুশান্তের মৃত্যুর তদন্ত করতে গিয়ে বলিউডের মাদক যোগের বিষয়টি ধরা পড়ে। মাদককাণ্ডে নাম জড়িয়েছে বলিউডের নামজাদা বহু তারকার। মাদক মামলাতেই সুশান্তের বান্ধবী রিয়া চক্রবর্তী এবং তাঁর ভাই শৌভিককে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল। শর্ত সাপেক্ষে জামিন পান দু’জন। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য এনসিবি দপ্তরে হাজিরা দিতে হয়েছে অভিনেত্রী দীপিকা পাড়ুকোন, সারা আলি খান, শ্রদ্ধা কাপুর, রকুলপ্রীত সিংকে। গ্রেপ্তার করা হয়েছিল কমেডিয়ান ভারতী সিং এবং তাঁর স্বামী হর্ষ লিম্বাচিয়াকে। সেই দু’জনও জামিনে মুক্তি পান। অনুমান করা হচ্ছে, মাদককাণ্ডে অর্জুনের নাম জড়িয়েছে বান্ধবী গ্যাব্রিয়েলা ডেমেত্রিয়াদেসের ভাই আগিসিলাওসের কারণে। গত নভেম্বর মাসে অর্জুনের বাড়িতে তল্লাশি চালায় এনসিবি। সেই মাসেরই ১৩ তারিখে এনসিবি অফিসে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য উপস্থিত হয়েছিলেন অভিনেতা। টানা ১৩ ঘন্টা জেরা করা হয় অভিনেতাকে। পরবর্তীতে ১৫ ডিসেম্বর ফের অর্জুনকে সমন পাঠায় এনসিবি। অভিনেতার বাড়ি থেকে ল্যাপটপ, মোবাইল, ট্যাব সহ অন্যান্য গ্যাজেট বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

- Advertisement -