প্রয়াত ঋষি কাপুর, শোকের ছায়া বলিউডে

742

মুম্বাই: বলিউডে ইন্দ্রপতন। প্রয়াত হলেন প্রখ্যাত অভিনেতা ঋষি কাপুর। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর। বৃহস্পতিবার সকালে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। বুধবার সকালে শ্বাসকষ্ট বাড়ায় অভিনেতাকে মুম্বাইয়ের একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। গভীর রাতে তাঁকে আইসিইউতে স্থানান্তরিত করা হয়। এদিন সকালে তাঁর মৃত্যু হয়।

বুধবারই মৃত্যু হয়েছে ইরফান খানের (৫৩)। তার ২৪ ঘন্টার মধ্যেই আরও এক অভিনেতাকে হারিয়ে বলিউডে শোকের ছায়া। অমিতাভ বচ্চন ট্যুইটে ঋষি কাপুরের প্রয়াণের খবর জানান। টুইটে বিগ বি লেখেন, ‘ও নেই…! ঋষি কাপুর নেই… এই মাত্র চলে গেল… আমি বিপর্যস্ত!’ ঋষি কাপুর রেখে গেলেন স্ত্রী নীতু সিং, ছেলে রণবীর কাপুর ও মেয়ে ঋদ্ধিমা কাপুরকে। ২০১৮ সালে ক্যানসার ধরা পড়ে তাঁর। দীর্ঘদিন ধরে ক্যানসারে ভুগছিলেন বর্ষীয়ান এই বলিউড অভিনেতা। একবছরেরও বেশি সময় ধরে নিউইয়র্কে চিকিত্‍‌সা করিয়ে গত সেপ্টেম্বরে দেশে ফেরেন তিনি। 

- Advertisement -

ঋষি কাপুরের জন্ম ১৯৫২ সালের ৪ সেপ্টেম্বর। রাজ কাপুর ও কৃষ্ণা রাজ কাপুরের দ্বিতীয় পুত্র ঋষি কাপুর। বড়পর্দায় ঋষি কাপুরের ডেবিউ মাত্র তিন বছর বয়সে শ্রী ৪২০ ছবিতে। ১৯৭০-এ রাজ কাপুরের পরিচালিত মেরা নাম জোকার সিনেমার মাধ্যমেই জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন এই বলিউড আইকন। শিশুশিল্পী হিসেবে এই ছবির জন্য জাতীয় পুরস্কার পান তিনি। সত্তর ও আশির দশকে লায়লা মজনু, কর্জ, প্রেমরোগ, নাগিনা, অমর আকবর অ্যান্টনি, ববি, চাঁদনি-র মতো বহু ছবিতে অভিনয় করেছেন তিনি। ববি সিনেমার জন্য ১৯৭৪ সালে সেরা অভিনেতার পুরস্কার পান তিনি। ২০১৯ এর ডিসেম্বরে মুক্তিপ্রাপ্ত দ্য বডি ছবিতে তাঁকে শেষ দেখা গিয়েছিল।

ঋষি কাপুরের মৃত্যুতে শোকের ছায়া দেশে।