মমতার বিরুদ্ধে অশালীন মন্তব্য করার কোনো অধিকার নেই: অধীর চৌধুরি

927

কলকাতা: প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি তথা কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরী বরাবরই তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরোধী হিসেবে চিহ্নিত। কিন্তু সেই মমতাকে ঘিরে বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক অনুপম হাজরার মন্তব্য নিয়ে অধীর চৌধুরি শেষমেশ বিজেপিকে তোপ দাগলেন।

রবিবার বারুইপুরে সভা করতে গিয়ে ছিলেন অনুপম। সেখানে অধিকাংশ বিজেপি কর্মীর মুখে মাস্ক ছিল না। সাংবাদিকরা এ ব্যাপারে প্রশ্ন করলে অনুপম বলেন, “বিজেপি নেতা-কর্মীরা করোনার চেয়ে অনেক বড় ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করছেন। সেটা হল মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও তৃণমূলে কংগ্রেস। তাই করোনায় তাঁদের কিছু হবে না।” এরপরই অনুপম বলেন, “আমি তো ঠিকই করে নিয়েছি, আমার করোনা হলে প্রথমে গিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে গিয়ে জড়িয়ে ধরব!” তাঁর এই মন্তব্য সম্পর্কে বিজেপির নবনিযুক্ত সর্ব ভারতীয় সহ-সভাপতি মুকুল রায়ও বলেছেন, দায়িত্ব থাকলে সতর্ক হয়ে কথা বলতে হয়। তাঁর মন্তব্যের নিশানা দুর্বোধ্য নয়। তৃণমূলের উদ্বাস্তু সেল সোমবার বোলপুরের প্রাক্তন তৃণমূল সাংসদের বিরুদ্ধে শিলিগুড়ি থানায় এফআইআরও দায়ের করে।

- Advertisement -

এদিকে সোমবার অধীর চৌধুরী টুইট করে বলেন, ‘মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে আমার হাজারও অভিযোগ আছে ও থাকবে। অভিযোগ ব্যক্ত করার অধিকার আমার আছে। কিন্তু তাঁর বিরুদ্ধে অশালীন মন্তব্য করার কোনও অধিকার নেই। একজন মহিলার প্রতি বিজেপি নেতার অশালীন মন্তব্য বাংলার তথা ভারতীয় সংস্কৃতির অপমান বলে মনে করি। প্রাক্তন তৃণমূল সাংসদ একদিন দিদিকে দেবী বলতেন, তাঁর দয়াতে সাংসদ হয়েছিলেন। বিজেপি পার্টি ক্ষমা চাও। বাংলায় এসব চলবে না।’