পোস্টে আটকে গিয়ে ফের ড্র গোয়ার

সুস্মিতা গঙ্গোপাধ্যায়, কলকাতা : একটা ছোট্ট পরিবর্তনই অনেকটা বদলে দিতে পারে একটা গোটা দলকে। এই ম্যাচ তার সেরা উদাহরণ। দেবেন্দ্র মুরগাঁওকার এবং ধীরাজ সিংয়ের বিক্রমেই এএফসি চ্যাম্পিয়ন্স লিগের দ্বিতীয় ম্যাচ থেকেও ফের পয়েন্ট প্রাপ্তি এফসি গোয়ার।

এদিন বিরতির ঠিক পরে দেবেন্দ্র মুরগাঁওকার মাঠে নামতেই দিনের সেরা সুযোগ এফসি গোয়ার। তাঁর দেওয়া বলটা জোরগে ওর্তিজ বক্সের মাথায় দাঁড়ান ব্রেন্ডন ফার্নান্ডেজকে বাড়িয়ে দিতেই যে শটটা নিলেন গোয়ান স্ট্রাইকার, পোস্ট বাধা হয়ে না দাঁড়ালে হয়ত সেই মুহূর্তেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগে নিজেদের প্রথম জয়টা নিশ্চিত করে ফেলে হুয়ান ফেরান্দোর দল। ৬৮ মিনিটেও তিনি একক চেষ্টায় যে বলটা নিয়ে গিয়েছিলেন, সঠিক সময়ে শট নিলে সেটা বা একের বিরুদ্ধে এক পরিস্থিতিতে ওর্তিজ-ব্রেন্ডন হয়ে আসা বলটা ঠেলতে পারলে হয় তো টুর্নামেন্টটাই অন্যরকম হয়ে যায়। দেবেন্দ্রর জন্যই বিরতির পর বারবার আক্রমন শানাতে পেরেছেন ব্রেন্ডন-ওর্তিজরা।

- Advertisement -

আমীরশাশির এই আল ওয়াহাদা কিন্তু আল রায়ানের থেকে শারীরিক দিক থেকে বেশি শক্তিশালী। প্রথম ম্যাচে গোয়ার খেলার ধরনটা দেখে নেওয়ায় তাদের সুবিধা হয়। লরা ব্লাঁ আগেরদিন বলেছিলেন, শুরুতেই ম্যাচের দখল না নেওয়ায় তাঁর দলের সমস্যা হয়ে যায়। এই ভুলটা আর হেন টেন কেটের দল করেনি। প্রথম থেকেই চাপ রেখে খেলছিল আল ওয়াহাদা। তবে ফেরান্দোর সম্ভবত নির্দেশ ছিল নিজেদের অর্ধে ভিড় বাড়িয়ে রাখা। সেটাই করছিলেন গ্লেন মার্টিন্সরা। আল ওয়াহাদার আসল লোক হচ্ছেন অধিনায়ক ইসমাইল মাতার। তিনিই আক্রমন সাজিয়ে দেন। বেশ কয়েবার নিজেও ধীরাজকে পরীক্ষা করে গেলেন।

এদিনের ম্যাচে ধীরাজই সেরা। ২৩ মিনিটে মাতারের মাপা কর্ণার থেকে ফারেস জুমার ৬ গজ বক্সের মধ্যে থেকে নেওয়া হেডটা তো দুর্দান্ত অনুমান ক্ষমতা দিয়ে বাঁচালেন তিনি। আসলে এটিকে মোহনবাগানে বসে থেকে তাঁর ধার নষ্ট হচ্ছিল। গোয়ায় এসে নিয়মিত খেলার সুযোগ তাঁর আত্মবিশ্বাস ফিরিয়েছে। বিরতির আগে মাটাসের বিরুদ্ধে ধীরাজ না রুখে দাঁড়ালে বাঁচে না তাঁর দল। দ্বিতীয়ার্ধেও মাটাস-ইব্রাহিমদের আক্রমন থেকে এতবার বাঁচালেন দলকে যে তাঁর কাছে আলাদাকরে কৃতজ্ঞ থাকবেন গোয়ানরা।

পরপর দুই ম্যাচে গোয়া দেখাল, চোখে চোখ রেখে লড়তে পারলে কিন্তু মধ্যে প্রাচ্যের যেসব দলকে এদেশের ক্লাবেরা এতদিন ভয় পেয়ে এসেছে, তাদের বিরুদ্ধেও ভালো ফল করা অসম্ভব নয়।