‌বিশেষভাবে সক্ষম নাবালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগ, গ্রেপ্তার অভিযুক্ত

333

ঘোকসাডাঙ্গা: মাথাভাঙ্গা ২ ব্লকের রুইডাঙ্গা গ্রাম পঞ্চায়েতের বিশেষভাবে সক্ষম এক নাবালিকাকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে এক বিবাহিত যুবকের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার এই ব্যপারে ঘোকসাডাঙ্গা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করে নির্যাতিতার পরিবার। ঘোকসাডাঙ্গা থানার পুলিশ ওই অভিযোগের ভিত্তিতে মামলা রুজু করে। অভিযুক্ত যুবককে এদিনই গ্রেপ্তার করে। পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনার তদন্ত শুরু করা হয়েছে।
স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবার সন্ধ্যায় মেয়েটি বাড়িতে একাই ছিল। সেই সময়ে কুশিয়ারবাড়ির এক যুবক তার আত্মীয়ের বাড়িতে ঘুরতে ওই গ্রামে এসেছিল। বাড়িতে একা থাকার সুযোগকে কাজে লাগিয়ে অভিযুক্ত যুবক নাবালিকাকে মোটর সাইকেলে তুলে নিয়ে বাড়ি থেকে কিছুটা দূরে দোলং নদীর পাড়ে শ্মশান ঘাটের পাশে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে। মেয়েটির চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা যেতেই অভিযুক্ত পালিয়ে যায়।
এদিন গোটা ঘটনা জানিয়ে অভিযুক্ত যুবকের বিরুদ্ধে ঘোকসাডাঙ্গা থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের হয়। পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্ত যুবকের নাম বাপি বর্মন। নির্যাতিতার ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য তাকে কোচবিহার মেডিকেলে পুলিশ পাঠায়।