তৃণমূলের দলীয় কার্যালয় ভাঙচুরের অভিযোগ বিজেপির বিরুদ্ধে

299

নয়ন রায়, সোনাপুর: তৃণমূল কংগ্রেসের দলীয় কার্যালয় ভাঙচুরের অভিযোগ উঠল বিজেপির বিরুদ্ধে। সোমবার গভীর রাতে আলিপুরদুয়ার-১ নং ব্লকের পররপার গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকার তৃণমূল কংগ্রেসের দলীয় কার্যালয়ে ভাঙচুর চালানো হয়।

পররপারের মনেয়ারপুল গ্রামের ১২-৮৮ নং বুথের তৃণমূলের ওই দলীয় কার্যালয়টির একাংশ ভেঙে দেওয়া হয়েছে বলে দলীয় সূত্রেঅভিযোগ। যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছে বিজেপি। পুরো ঘটনায় তৃণমূলের তরফে আলিপুরদুয়ার থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

- Advertisement -

আরও পড়ুন: র‍্যাশন দুর্নীতির বিরুদ্ধে প্রতীকী অবস্থানে বিজেপি

সূত্রের খবর, পররপারের মনেয়ারপুল গ্রামের তৃণমূল কংগ্রেসের ওই দলীয় কার্যালয়টি তৈরির কাজ কয়েকমাস আগে শুরু করা হয়েছিল। সম্প্রতি, লকডাউনের কারণে কাজ মাঝপথে বন্ধ হয়ে যায়। লকডাউনের আগেই কার্যালয়টির বেশকিছু পিলার তৈরিও সম্পন্ন হয়। তৃণমূলের দাবি, গতকাল গভীর রাতে এলাকার বিজেপির কর্মী-সমর্থকরাই তাদের ওই দলীয় কার্যালয়টিতে ভাঙচুর চালিয়েছে।

এই বিষয়ে গ্রামের ১২-৮৮ নং বুথের তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি নিত্যানন্দ অধিকারী বলেন, ‘লকডাউনের সুযোগ নিয়ে আমাদের বুথের বিজেপি কর্মীরাই গতকাল গভীর রাতে একাজ করেছে। পুরো বিষয়টি দলীয় নেতাদের জানানো হয়েছে।’ আলিপুরদুয়ার-১ নং ব্লকের তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি মনোরঞ্জন দে বলেন, ‘রাতে মদ খেয়ে বিজেপির কর্মী সমর্থকরাই এইকাজ করেছে।’

আরও পড়ুন: বাংলার পরিযায়ী শ্রমিকরা ফিরলেন, বাসের ব্যবস্থা করল রাজ্য সরকার

যদিও বিজেপির বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করে ওই বুথের বিজেপি সভাপতি শিবেন রায় বলেন, ‘ঘটনার খবর মিডিয়ার মাধ্যমেই প্রথম শুনলাম। আমাদের কর্মীরা ভাঙচুরের আদর্শ নিয়ে পার্টি করে না। ওরাই নিজেদের মধ্যে কোন্দল ঘটিয়ে এইকাজ করেছে।’ আলিপুরদুয়ার-১১ নং মন্ডল বিজেপির সাধারণ সম্পাদক দীপক কার্জি বলেন, ‘আমাদের কর্মীরা ভাঙচুরের আদর্শে বিশ্বাসী নন।’

আলিপুরদুয়ার থানার এসআই বলাই চন্দ্র সরকার জানিয়েছেন, লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। পুরো ঘটনা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।