টেন্ডার দুর্নীতির অভিযোগ, প্রধানকে দপ্তরে তালা মেরে বিক্ষোভ

120

মানিকচক: কোটি কোটি টাকার টেন্ডার দুর্নীতির অভিযোগ। আর এর প্রতিবাদে তৃণমূল পরিচালিত গ্রাম পঞ্চায়েত প্রধানকে দপ্তরেই তালা মেরে বিক্ষোভ দেখাল তৃণমূলেরই একাংশ। মালদার মানিকচকের ধরমপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের ঘটনা।

১০০ দিনের কাজের প্রকল্পে টেন্ডার নিয়ে দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে। এই প্রকল্পে ১ কোটি ৭০ লক্ষ টাকার টেন্ডার নোটিশ করে ধরমপুর গ্রাম পঞ্চায়েত। অভিযোগ, মোটা টাকার কাটমানির বিনিময়ে মুষ্টিমেয় কয়েকজন ঠিকাদারকে কাজ পাইয়ে দেওয়ার জন্য চক্রান্ত করেছেন প্রধান। কয়েকজন ঠিকাদার বাদে অন্য কাউকে অনলাইনের টেন্ডার জমা দেওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় নথিই সরবরাহ করেনি তিনি। এমনকি, অন্য কেউ যাতে ডিসিআর কাটতে না পারে সেই জন্য ডিসিআর বুক নিজের বাড়িতে নিয়ে গিয়ে আটকে রাখার অভিযোগ ওঠে প্রধানের বিরুদ্ধে। আর এই ঘটনায় ক্ষোভে ফেটে পড়ে শাসকদলের কর্মী সমর্থকদের একাংশ। এদিন শাসকদলেরই কিছু পঞ্চায়েত সদস্য ও অন্যান্য এলাকার তৃণমূলের কর্মী-সমর্থকরা প্রধান নাহারুন শেখকে পঞ্চায়েত অফিসে তালা মেরে বিক্ষোভ দেখান তাঁরা। যদিও দুর্নীতির অভিযোগ নিয়ে প্রধানের কোনও বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

- Advertisement -

ধরমপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের সদস্য রবিউল আলির অভিযোগ, পঞ্চায়েতে কোটি কোটি টাকার টেন্ডার হচ্ছে। কিন্তু সদস্যরা কিছুই জানেন না। মোটা কাটমানির বিনিময়ে প্রধান তাঁর পেটুয়া ঠিকাদারদের কাজ পাইয়ে দিতে ষড়যন্ত্র করেছেন বলে দাবি রবিউলবাবুর। তবে তাঁর বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগকে ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন ধরমপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান শেখ নাহারুন।

এই বিষয়ে মানিকচকের বিডিও জয় আমেদ জানান, তিনি অভিযোগ পেয়েছেন। ব্লক প্রশাসন অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্ত শুরু করেছে। অভিযোগ প্রমাণ হলে উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।