বিজেপি কর্মীর বাড়িতে ভাঙচুরের অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে

135

তুফানগঞ্জ: বিজেপির এক সক্রিয় কর্মীর বাড়ি ভাঙচুরের অভিযোগ উঠল তৃণমূল ও শাখা সংগঠন আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। বুধবার রাতের ঘটনাটি ঘটেছে তুফানগঞ্জ শহরের ১ নম্বর ওয়ার্ডের মাস্টার পাড়ায়। বিজেপি কর্মী জ্ঞান চন্দ্র অধিকারীর বাড়িতে হামলার ঘটনাটি ঘটেছে। তাঁর ছেলে বিশ্বজিৎ অধিকারী বিজেপির কিষান মোর্চার তুফানগঞ্জ শহর মণ্ডল সভাপতি। তিনিও একজন সক্রিয় বিজেপি কর্মী।

পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে, এই নিয়ে চারবার হামলার ঘটনা ঘটেছে। গতকাল রাতের হামলায় বিশ্বজিৎবাবুর বাড়ির বেড়া ভেঙে গিয়েছে। জ্ঞান চন্দ্র অধিকারী বলেন, ‘তৃণমূল আশ্রিত দুষ্কৃতীরা বাড়িতে হামলা চালালেও ঘটনাস্থলে পুলিশ যায়নি। আমিও পুলিশকে বিষয়টি জানাইনি। এক সময়ে বিজেপির একটি শাখা সংগঠনের দায়িত্বে ছিলাম। এখন আর রাজনীতি করবো না।‘

- Advertisement -

বিজেপির জেলা সভা নেত্রী তথা তুফানগঞ্জ বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক মালতি রাভা রায় বলেন, ‘তুফানগঞ্জ সহ জেলা ও রাজ্য জুড়ে তৃণমূল ক্ষমতায় আসার পর বিজেপি কর্মী ও সমর্থকদের মারধর করছে। বাড়িঘর ভাঙচুর করছে। পুলিশ তৃণমূলের দাসে পরিণত হয়েছে। পুলিশে অভিযোগ জানিয়ে ও বিজেপি কর্মীরা কোনও সুরাহা পাচ্ছেন না। তবে, বিজেপি ময়দানে রয়েছে। আগামীদিনেও থাকবে।‘

তৃণমূলের রাজ্য সহ সভাপতি তথা প্রাক্তন উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন মন্ত্রী রবীন্দ্রনাথ ঘোষ বলেন, ‘এটা নতুন বিজেপি কর্মী ও পুরানো বিজেপি কর্মীদের মধ্যে গোষ্ঠী কোন্দলের ফল। ওদের গোষ্ঠী কোন্দল চলছে। আর দোষ দেওয়ার চেষ্টা করা হচ্ছে তৃণমূল কর্মীদের ওপর।‘