ইটাহারে বিজেপির নির্বাচনি কার্যালয় ভাঙচুরের অভিযোগ

85

ইটাহার: ইটাহারে ‘খেলা’ শুরু। নির্বাচনের ফল ঘোষণা হতেই বিজেপির নির্বাচনি কার্যালয় ভাঙচুরের ঘটনায় চরম উত্তেজনা ছড়াল সদর ইটাহারে। রবিবার সন্ধ্যায় ইটাহার চৌরাস্তা মোড়ে উল্কা ক্লাব তথা বিজেপির নির্বাচনি কার্যালয়ে অতর্কিতে হামলা চালায় একদল দুষ্কৃতী। হামলাকারীদের অধিকাংশই অল্পবয়সি যুবক। উল্কা ক্লাব ইটাহারের প্রাক্তন বিধায়ক অমল আচার্যর ক্লাব বলেই পরিচিত। ভোটের মুখে তিনি তৃণমূল ছেড়ে যোগ দেন বিজেপিতে। অভিযোগ, আক্রোশের বশে তৃণমূল কংগ্রেস আশ্রিত দুষ্কৃতীরা এই হামলা চালিয়েছে। ভাঙচুর চালানো হয় ক্লাবের ভেতরে। চেয়ার, টেবিল, টিভি সহ সমস্ত আসবাব ভেঙে তছনছ করে দেওয়া হয়েছে। ঘর থেকে ভাঙা আসবাব ও ক্যারম বোর্ড বাইরে এনে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয় ক্লাবের সামনে। ক্লাব সদস্যদের অভিযোগ, তৃণমূল কংগ্রেস আশ্রিত দুষ্কৃতীরা এই তাণ্ডব চালিয়েছে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়ায় ইটাহারে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছোয় ইটাহার থানার বিশাল পুলিশ বাহিনী৷ ছত্রভঙ্গ করা হয় উত্তেজিত জনতাকে।

প্রাক্তন বিধায়ক অমল আচার্য বলেন, ‘এরকম প্রতিহিংসার রাজনীতি বা ভোটে জেতার এরকম উল্লাস আগে কখনও দেখেননি ইটাহারবাসী।’

- Advertisement -

নবনির্বাচিত বিধায়ক মোশারফ হুসেন বলেন, ‘দল এরকম ঘটনাকে কখনওই প্রশ্রয় দেবে না। তৃণমূলের কেউ ঘটনায় জড়িত থাকলে তাঁদের দল থেকে বের করে দেওয়া হবে।’

এদিকে, ঘটনার পর পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে চৌরাস্তা মোড়ে পুলিশ পিকেট বসানো হয়েছে।