গ্রেপ্তার হয়ে বিস্ফোরক অভিযোগ এই বিজেপি নেত্রীর

128

কলকাতা: দলের নেতার বিরুদ্ধেই চক্রান্তের অভিযোগ তুললেন মাদককাণ্ডে ধৃত বিজেপি যুব মোর্চার সম্পাদক পামেলা গোস্বামী। আদালতে যাওয়ার পথে পামেলার অভিযোগ, চক্রান্ত করে ফাঁসানো হয়েছে তাঁকে। কৈলাস বিজয়বর্গীয়র ঘনিষ্ঠ বিজেপি নেতা রাকেশ সিংয়ের দিকেই অভিযোগের আঙুল তুলেছেন পামেলা। ঘটনায় সিআইডি তদন্তের দাবি জানিয়েছেন তিনি।

এদিকে, বিজেপি যুব মোর্চার নেত্রী পামেলার গ্রেপ্তার প্রসঙ্গে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘দোষী হলে আইন আইনের পথে চলবে।’ চক্রান্ত করে ফাঁসানো হলে আন্দোলনে নামবেন বলেও জানান দিলীপবাবু। তদন্ত না করে কারও উপর দোষ চাপানো ঠিক নয় বলে জানান বিজেপি সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায়। যদিও ধৃত পামেলার সঙ্গে বিজেপির যোগাযোগ খুব বেশি দিনের নয়। সম্প্রতি দলের যুব মোর্চার কর্মসূচিতে সক্রিয়ভাবে অংশ নিচ্ছিলেন তিনি।

- Advertisement -

শুক্রবার কলকাতার নিউ আলিপুর থেকে ১০০ গ্রাম কোকেন সহ গ্রেপ্তার হন রাজ্য বিজেপি যুব মোর্চার সম্পাদক পামেলা গোস্বামী। গ্রেপ্তার হন তাঁর সঙ্গী বিজেপির যুব নেতা প্রবীর কুমার দে। উদ্ধার হওয়া কোকেনের বাজারমূল্য কয়েক লক্ষ টাকা বলে পুলিশ সূত্রে জানা যায়। এই গ্রেপ্তারির পিছনে রাজনীতি রয়েছে বলে দাবি বিজেপির। তাঁকে ফাঁসানোর চক্রান্ত করা হয়েছে বলে অভিযোগ তোলেন পামেলা।

দীর্ঘদিন ধরে পামেলা ও প্রবীর একসঙ্গে রাজনীতির পাশাপাশি নিউটাউনে একটি বিউটি পার্লার চালাতেন। কোথা থেকে মাদক আসত, আর কাদের পাচার করা হত, সবদিক খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।