আঁচ করতে পারেনি দল, শংকরের দলবদলে হতভম্ব সিপিএম

127

শিলিগুড়ি: দীর্ঘদিনের দাপুটে নেতা শংকর ঘোষের এভাবে দলবদলের বিষয়টি আঁচ করতে পারেননি সিপিএম নেতৃত্ব। তলে তলে শংকর যে বিজেপির সঙ্গে যোগাযোগ রেখে চলেছেন তারও তল পাননি অশোক ভট্টাচার্য-জীবেশ সরকাররা। সেভাবে প্রকাশ না করলেও ‘ছায়াসঙ্গী’ শংকর ঘোষ দল ছাড়ায় কিছুটা হতাশ শিলিগুড়ির বাম শিবির। এদিন সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে শংকরের দলবদলের বিষয়ে অশোক বলেন, ‘এরকম ব্যক্তিত্বের সম্পর্কে যত কম বলা যায়, তত ভালো। আমার এসব নিয়ে কোনও ভাবনা চিন্তাই নেই। উনি কি করলেন আর না করলেন তাতে কিছু আসে যায় না। ওঁনার সঙ্গে দলের কোনও সম্পর্ক নেই। দল থেকে তাঁকে বহিষ্কার করা হয়েছে।’ এমনটা যে হবে তা আগে থেকেই বোঝা উচিত ছিল বলেই মন্তব্য করেন এই সিপিএম নেতা।

দলের সাংগঠনিক কাজকর্মে বীতশ্রদ্ধ হয়ে বুধবারই সিপিএম ছাড়েন শংকর ঘোষ। এরপর থেকেই জল্পনা শুরু হয়ে যায় যে, তিনি এখন পদ্মশিবিরের পথে। বৃহস্পতিবার মাটিগাড়ার একটি বেসরকারি হাসপাতালে বিজেপির কেন্দ্রীয় মুখপাত্র তথা দার্জিলিংয়ের সাংসদ রাজু বিস্টের সঙ্গে বৈঠকও করেন শংকর। এরপরই শুক্রবার রাজ্য বিজেপির পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয়র উপস্থিতিতে গেরুয়া পতাকা হাতে তুলে নেন তিনি। প্রসঙ্গত, শিলিগুড়ি পুরনিগমের প্রাক্তন কাউন্সিলার শংকর পুরনিগমের প্রশাসক মণ্ডলীর সদস্য ছিলেন। পাশাপাশি, দলের জেলা কমিটিতেও ছিলেন তিনি।

- Advertisement -