মহিলাদের স্বনির্ভরতার দিশা দেখাচ্ছেন আসমা বিবি

106

পুরাতন মালদা: মহিলাদের স্বনির্ভরতার দিশা দেখাচ্ছেন পুরাতন মালদার সাহাপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের সাকার্মা গ্রামের আসমা বিবি। ছ’বছর আগে ওই মহিলা স্বনির্ভর গোষ্ঠী থেকে এক লক্ষ টাকা ঋণ নিয়ে তিনি বাড়িতেই শুরু করেছিলেন হাঁস প্রতিপালন। পরবর্তীতে গড়ে তোলেন হাঁস প্রতিপালন ফার্ম। মূলত ডিম থেকে বাচ্চা বের করে তিনি তা বাজারে বিক্রি করেন। দীর্ঘ পরিশ্রমের ফল পাচ্ছেন তিনি। তাঁর ব্যবসাও ধীরে ধীরে বাড়ছে। সরকারি সাহায্য পেলে নিজের ব্যবসা আরও বড় করার ইচ্ছে রয়েছে তাঁর।

আসমা বিবি বলেন, ‘আমি এই ফার্ম দেখাশোনা করি। হাঁসের ডিম থেকে বাচ্চা ফোটানো, বাচ্চাকে টিকা দেওয়া সবই আমি করি। প্রতিদিন সকালে ফার্ম পরিষ্কার করে বাচ্চাগুলোকে খাবার আর জল দিতে হয়। দিনে পাঁচ থেকে ছ’বার বাচ্চাগুলিকে জল আর খাবার দিতে হয়। মেশিনেই ডিম ফোটানো হয়। ২৮ দিন পরে ডিম থেকে বাচ্চা বেরিয়ে আসে। ফার্ম থেকে ডিম সংগ্রহ করি। ফার্মের লোকজনই বাড়িতে ডিম দিয়ে যায়। ডিম থেকে বাচ্চা বেরোনোর পর ১২দিন সেই বাচ্চাগুলিকে লালন পালন করি। তারপর সেগুলি বিক্রি করি। এখন প্রতিটি বাচ্চা ৩০ টাকা করে বিক্রি করছি। প্রতিটি ডিম আমাদের ১০ টাকা করে কিনতে হয়। এই ব্যবসায় লাভ ও ক্ষতি, দুই’ই আছে। এর আগে প্রায় ছ’লক্ষ টাকা ক্ষতি হয়েছিল। তখন থেকেই ব্যবসা একটু ঢিলে চলছে। ব্যবসা বাড়াতে আমি সরকারি সহযোগিতা দাবি করছি।’

- Advertisement -