রাস্তা দখলের প্রতিবাদ করায় যুবতীকে খুনের চেষ্টা

334

পুরাতন মালদা: বাড়ির একমাত্র যাতায়াতের রাস্তা দখলের প্রতিবাদ করায় এক যুবতীকে খুনের চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে প্রতিবেশী চারজনের বিরুদ্ধে। মেয়েকে বাঁচাতে গিয়ে দুষ্কৃতীদের হামলায় জখম হয়েছেন বৃদ্ধা মা। শুক্রবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে পুরাতন মালদা থানার সাহাপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের কাদিরপুর এলাকায়। গুরুতর জখম ওই যুবতীকে মৌলপুর প্রাথমিক চিকিৎসা কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়। তবে যুবতী ও তাঁর বৃদ্ধা মা’কে প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। আক্রান্ত যুবতীর মা চারুবালা মন্ডল এবিষয়ে পুরাতন মালদা থানায় সুশান্ত মন্ডল, নিরঞ্জন মন্ডল সহ চারজনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ জানিয়েছেন। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্তরা পলাতক। পুলিশ অভিযুক্তদের খোঁজ শুরু করেছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, জখম ওই যুবতীর নাম ময়না মন্ডল (২০)। তাঁর মা চারুবালা মন্ডল (৬০)। যুবতীর বাবা লক্ষ্মণ মণ্ডল পেশায় দিনমজুর। বেশ কিছুদিন ধরে যাতায়াতের একমাত্র রাস্তা নিয়ে প্রতিবেশী সুশান্ত মন্ডলদের সঙ্গে গোলমাল চলছিল যুবতীর পরিবারের। এদিন সকালে তাঁদের যাতায়াতের একমাত্র রাস্তাটি দখলের চেষ্টা করেন অভিযুক্তরা। প্রতিবাদ করেন ওই যুবতী ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা। তখনই অভিযুক্তরা ধারালো অস্ত্র দিয়ে ময়না মন্ডল ও তাঁর বৃদ্ধা মায়ের ওপর হামলা চালান বলে অভিযোগ। যুবতীর মাথা ফাটিয়ে দেওয়া হয়।

- Advertisement -

ময়না মন্ডল ও তাঁর পরিবারের সদস্যরা এদিন পুরাতন মালদা থানায় অভিযোগ জানান। ময়না মন্ডল বলেন, ‘হামলার ঘটনার সময় বাড়িতে কেউ ছিল না। অভিযুক্ত সুশান্ত মন্ডল ও তাঁর পরিবারের লোকেরা দীর্ঘদিন ধরে আমাদের যাতায়াতের রাস্তা দখলের জন্য মরিয়া চেষ্টা চালাচ্ছেন। এদিন সকালে ওঁরা আমাদের রাস্তা দখল করতে আসেন। সেই সময় প্রতিবাদ জানালে আমাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে খুনের চেষ্টা করা হয়। মাথার চুল কেটে নেওয়া হয়। মা চারুবালা মন্ডলকেও দুষ্কৃতীরা মারধর করে। প্রতিবেশী চারজনের বিরুদ্ধে পুরাতন মালদা থানায় অভিযোগ জানিয়েছি।’

পুরাতন মালদা থানার পুলিশ জানিয়েছে, ওই যুবতীর মাথায় গুরুতর চোট রয়েছে। তাঁর বৃদ্ধা মাকে মারধর করা হয়েছে। মৌলপুর প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে তাঁদের প্রাথমিক চিকিৎসা হয়েছে। হামলার ঘটনার পর থেকেই অভিযুক্তরা পলাতক। তাঁদের খোঁজ চলছে।