আসানসোলের মাটিতে পা রেখে উচ্ছ্বসিত বাবুল, একহাত নিলেন দিলীপ-শুভেন্দুকে

159

আসানসোল: বিজেপি ও সাংসদ পদ ছেড়ে বুধবার প্রথম আসানসোলের মাটিতে পা রেখে উচ্ছ্বসিত প্রাক্তন কেন্দ্রীয় প্রতিমন্ত্রী তথা আসানসোলের সাংসদ বাবুল সুপ্রিয়। বুধবার আসানসোলে পৌঁছে তৃণমূল কংগ্রেসের কর্মী ও সমর্থকদের থেকে অভ্যর্থনা পেয়ে আপ্লুত তিনি। বাবুল সুপ্রিয় বলেন, ‘মন দিয়ে গান ও প্রাণ দিয়ে বাংলার মানুষের জন্য কাজ করব। যে সুযোগটা আমাকে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দোপাধ্যায় আমাকে করে দিয়েছেন।’ অন্যদিকে নাম না করে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতি দিলীপ ঘোষের সমালোচনা ও বিজেপি সম্পর্কে তথাগত রায়ের কথাকে সমর্থন করেন তিনি।

এদিন সাংবাদিক বৈঠকে তিনি বলেন, ‘আন্তরিকতা না থাকলে আমি কোনও কাজ করি না। যখন বিজেপিতে ছিলাম তখন তা মন দিয়ে করেছি। এখন তৃণমূল কংগ্রেসে আছি। এখন এই দলটা আরও মন দিয়ে করব। রাজনীতিটা তো ছেড়ে দিয়েছিলাম। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দোপাধ্যায়ের জন্য আবার রাজনীতিতে এলাম। দিদি আমাকে বলেন, রাজনীতি ছেড়ো না। ভালো কাজ তো করেছ।’ এরপরই দল বদল প্রসঙ্গে বলেন, ‘আমি দল বদল করে ও সাংসদ পদ ছেড়ে কোন ইতিহাস সৃষ্টি করিনি। যেদিন দল বদল করেছিলাম, সেদিনই ঠিক করে ছিলাম, সাংসদ পদ ছেড়ে দেব। তাই করেছি। আমার মতো ক’জন করতে পারবে জানি না।’ এই প্রসঙ্গে রাজ্যের বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী ও তাঁর পরিবারকে আক্রমন করেন বাবুল। তিনি সমালোচনার সুরে বলেন, ‘ওই পরিবারের বড়কর্তা সহ দুজন তো এখনও তো সাংসদ পদ ছেড়ে দেয়নি। আর শুভেন্দু অধিকারী তো নিজের সম্পর্কে অনেক বড় বড় কথা বলেন। কিন্তু তাঁর কিন্তু মন্তব্য আমাকে অবাক করে। আর দিলীপ ঘোষের সম্পর্কে যত কম কথা বলা যায়, তা ভালো। সকালে উঠে ভালো ব্যায়াম ও যোগ করছেন। সেটাই উনি করে যান। তাঁর মতো এতবড় আহাম্মক আমি দেখিনি।’

- Advertisement -