বেহাল রাস্তাই পিবিইউয়ের দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের কাঁটা

301

মাথাভাঙ্গা : বুধবার উত্তরকন্যা থেকে মাথাভাঙ্গা খলিসামারিতে কোচবিহার পঞ্চানন বর্মা বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের শিলান্যাস করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে খলিসামারিতে প্রস্তাবিত জমিতে দ্বিতীয় ক্যাম্পাস স্থাপনের অন্যতম কাঁটা জটামারিতে মাথাভাঙ্গা-শীতলকুচি সড়ক থেকে জমি পর্যন্ত ৯ কিমি বেহাল রাস্তা। রাস্তা সংস্কার না হলে দ্বিতীয় ক্যাম্পাস তৈরির কাজ যে বাধাপ্রাপ্ত হবে তা একবাক্যে স্বীকার করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ থেকে শুরু করে এলাকার বাসিন্দারা। পঞ্চানন বর্মা বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য ডঃ দেবকুমার মুখোপাধ্যায় বলেন, রাস্তা বেহাল থাকলে দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের নির্মাণকাজ শুরু করতে সমস্যা হবে।

খলিসামারিতে পঞ্চানন বর্মা বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের অনুমোদন দেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বৃহস্পতিবার উত্তরকন্যা থেকে তিনি খলিসামারিতে দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের শিলান্যাস করেন। তবে মনীষী পঞ্চানন বর্মার স্মৃতিবিজড়িত জন্মভিটা এবং জন্মভিটা সংলগ্ন পঞ্চানন সংগ্রহশালা থাকা সত্ত্বেও দীর্ঘ দুবছরের বেশি সময় ধরে জটামারি থেকে সরকারহাট পর্যন্ত রাস্তা বেহাল থাকায় ক্ষুব্ধ এলাকার বাসিন্দা থেকে শুরু করে পঞ্চানন অনুরাগীরা। দীর্ঘদিন রাস্তাটির বেহাল থাকায় এবং সেটির সংস্কার না হওয়ায় ক্ষোভ উপরে দেন পুণ্যভূমি খলিসামারি পঞ্চানন বর্মা মেমোরিয়াল অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট ট্রাস্টের সম্পাদক গিরীন্দ্রনাথ বর্মন। শীতলকুচির বিধায়ক হিতেন বর্মন বলেন, জটামারি থেকে সরকারহাট পর্যন্ত বেহাল রাস্তাটি সংস্কারের জন্য টেন্ডার এবং ওয়ার্ক অর্ডার হয়ে আছে। টানা বৃষ্টির জন্য সংস্কারের কাজ শুরু করা যাচ্ছে না। পাশাপাশি তিনি জানান, জটামারি থেকে প্রস্তাবিত বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় ক্যাম্পাসের জমি পর্যন্ত ৯ কিমি রাস্তা বাংলা গ্রাম সড়ক যোজনা প্রকল্পের অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। ইতিমধ্যে প্ল্যান এস্টিমেটও হয়ে গিয়েছে। রাস্তার সমস্যা দ্রুত সমাধানের জন্য বিশেষ গুরুত্ব আরোপ করা হয়েছে বলে বিধায়ক আশ্বাস দেন।

- Advertisement -