ভারতের স্থল সীমান্ত পথ বন্ধ করল বাংলাদেশ

99
ফাইল ছবি

ঢাকা: ভারতে ঊর্ধ্বমুখি করোনা সংক্রমণ। এমতবস্থায় সোমবার থেকে ১৪ দিনের জন্য ভারতের সঙ্গে স্থল সীমান্ত পথে যাতায়ত বন্ধ ঘোষণা করল বাংলাদেশ। তবে পণ্যবাহী যান চলাচল করবে। যদিও আগে থেকেই আকাশপথ বন্ধ রয়েছে। বাংলাদেশের বিদেশমন্ত্রী ড. এ কে আবদুল মোমেন জানিয়েছেন, ভারতে করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় তারা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।

রবিবার বাংলাদেশের বিদেশ সচিব মাসুদ বিন মোমেনের সভাপতিত্বে অন্তঃমন্ত্রণালয়ের সভায় বলা হয়েছে, ভারতে করোনা মহামারীর ব্যাপক বিস্তার বাংলাদেশে ছড়িয়ে পড়া ঠেকাতেই এই সিদ্ধান্ত। বিদেশমন্ত্রক সূত্রের খবর, মানুষ চলাচল বন্ধ থাকলেও, সীমান্ত বাণিজ্য ব্যবস্থা সচল থাকবে। যেসব বাংলাদেশির ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে যাচ্ছে, তাদের ক্ষেত্রে কোভিড টেস্ট ও কলকাতা মিশনের ছাড়পত্র সাপেক্ষে বাংলাদেশে প্রবেশের সুযোগ থাকবে। ২৮ এপ্রিল পর্যন্ত মধ্যপ্রাচ্যের কয়েকটি দেশ ছাড়া সব দেশের সঙ্গেই বাংলাদেশের বিমান যোগাযোগ বন্ধ থাকছে। এরপর ভারতের সঙ্গে আকাশপথে যোগাযোগ থাকবে কি না, সে বিষয়ে এখনও কোনও সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়নি বলেই খবর।

- Advertisement -

এর আগে জরুরি পণ্যপরিবহন ছাড়া ভারতের সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধের প্রস্তাব করে কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি কমিটি। কমিটির প্রধান অধ্যাপক ডা. মোহাম্মদ সহিদুল্লাহর মতে একেবারেই জরুরি প্রয়োজন ছাড়া ভারতের সঙ্গে যাতায়াত বন্ধ করা দরকার। প্রতিবেশী দেশের সঙ্গে খুব বেশি যাতায়াত হলে সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার ঝুঁকি থাকে।

প্রিমিয়ার সিমেন্টের আন্তর্জাতিক রপ্তানিবিষয়ক মুখপাত্র ড. সালাউদ্দিন বলেন, ‘সীমান্ত পথে মানুষের চলাচলে নিষেধাজ্ঞা আসলেও জরুরী পণ্যপরিবহন সচল রাখা উভয় দেশের অর্থনীতির জন্যই প্রয়োজন।’ পণ্যপরিবহন সচল রাখায় সরকারকে অভিনন্দন জানান তিনি।