হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে নদীঘাটে বাজল ডিজে, ফাটল না বাজি

305

রায়গঞ্জ: হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে রায়গঞ্জের নদী ঘাটগুলিতে বাজল না ডিজে এবং ফাটল না বাজি। এদিন শহরের বন্দর শ্মশানঘাট, খেয়াতরী ঘাট, কাঞ্চনপল্লী ঘাট সহ প্রতিটি ঘাটে কঠোর নজরদারি চালালো পুরসভা সহ পুলিশ প্রশাসন। মাস্কহীন অবস্থায় ঘাটে প্রবেশের ক্ষেত্রে ছিল নিষেধাজ্ঞা। ফলে খুব সংখ্যক মানুষকে এদিন মাস্কবিহীন অবস্থায় ঘাটে দেখা গেছে।

এদিন রায়গঞ্জ বন্দর শ্মশানঘাটে সাধারন মানুষকে সচেতন করেন এবং নজরদারি চালান রায়গঞ্জ পুরসভার পুরপিতা সন্দীপ বিশ্বাস। তাঁর সঙ্গে ছিলেন কাউন্সিলার তপন দাস সহ স্বাস্থ্য দপ্তরের কর্মীরা, পুলিশ ও বিপর্যয় মোকাবিলার টিম।ঘাটগুলি আলোকিত করার পাশাপাশি ছিল স্বাস্থ্যকর্মীদের ক্যাম্প ও মহিলাদের বস্ত্র পরিবর্তনের ছাউনি। হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে চলার জন্য সাধারন মানুষকে সচেতন করা হয়।

- Advertisement -

অন্যবারের তুলনায় এবারে ঘাটে ছট ভক্ত ও পূর্ণ্যার্থীদের ভিড় ছিল যথেষ্ট কম। সন্ধ্যার আগেই ঘাট থেকে বাড়ি ফিরতে শুরু করে সবাই। ঘাটে দেখা যায় মাস্ক, স্যানিটাইজার পড়ে পুজো ও সিঁদুর খেলায় মাতেন পূর্ণ্যার্থীরা। আগামীকাল ভোর ৩ টা থেকে নদীঘাটগুলিতে আজকের মতো ব্যবস্থা থাকবে বলে প্রশাসন থেকে জানানো হয়েছে।

পুরপিতা সন্দীপ বিশ্বাস বলেন, ‘হাইকোর্টের নির্দেশ মেনে ছট পুজো পালন করলেন পূর্ণ্যার্থীরা।পুরসভা ও প্রশাসনের তরফে সমস্ত রকম ব্যবস্থা রয়েছে। এবারে নদীঘাটে কেউ ফাটায়নি বাজি এবং বাজায়নি ডিজে। অন্যবারের তুলনায় ভিড় ছিল যথেষ্ট কম।আগামীকাল ভোর ৩ টা থেকে ঘাটগুলিতে আজকের মতো ব্যবস্থা থাকবে।‘