মোদির ব্রিগেড সমাবেশে যাচ্ছেন আলিপুরদুয়ারের বিজেপি কর্মীরা

150

বীরপাড়া: ৭ মার্চ কলকাতার ব্রিগেডে বিজেপির সমাবেশে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সমাবেশে যেতে এবার সাধারণ মানুষের বাড়ি বাড়ি গিয়ে আমন্ত্রণ জানাবে বিজেপি। বিজেপির জেলা কমিটি সূত্রের খবর, ইচ্ছুক বিজেপি কর্মীরা ছাড়াও এবার ব্রিগেডে নিয়ে যাওয়া হবে আমন্ত্রিতদের। তবে জেলা থেকে কত হাজার মানুষকে ওই সমাবেশে নিয়ে যাওয়া হবে সোমবার বিকেল পর্যন্ত তা স্থির করা হয়নি।

দলের আলিপুরদুয়ার জেলা কমিটির সহসভাপতি জয়ন্ত রায় বলেন, ‘ইতিমধ্যেই ওই সমাবেশে যাওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেছেন কমবেশি পঁয়তাল্লিশ হাজার বিজেপি কর্মী। তবে তাদের মধ্যে কতজনকে নিয়ে যাওয়া হবে, কিভাবে নিয়ে যাওয়া হবে তা নিয়ে জেলা কমিটির সঙ্গে মণ্ডল কমিটিগুলির আলোচনা চলছে। এছাড়া এবার আমন্ত্রিতদেরও ব্রিগেডে নিয়ে যাওয়া হবে।’

- Advertisement -

প্রসঙ্গত, ব্রিগেডে অনুষ্ঠেয় ওই সমাবেশ নিয়ে আলিপুরদুয়ার জেলায় জোর প্রচারাভিযানের প্রস্তুতি নিয়েছে বিজেপি। জেলায় বিজেপির ২২ টি মণ্ডল কমিটি রয়েছে। মণ্ডল কমিটিগুলির নেতৃত্বের সঙ্গে যোগাযোগ রেখে ব্রিগেডে যেতে ইচ্ছুকদের নাম সংগ্রহ করছেন বিজেপির জেলা স্তরের নেতারা। মণ্ডল কমিটিগুলি আবার বৈঠক করছে বুথ কমিটিগুলির সঙ্গে। ব্রিগেড সমাবেশের প্রস্তুতি নিতে সোমবার মাদারিহাটের রাঙ্গালিবাজনা গ্রামপঞ্চায়েতের শিশুবাড়িতে এক বৈঠকে বসেন দলের ১৮ নম্বর মণ্ডল ও যুব মোর্চা ও বুথ স্তরের নেতারা। উপস্থিত ছিলেন ১৮ নম্বর মণ্ডলের সহ সভাপতি মনোহর লাখোটিয়া, রাঙ্গালিবাজনা অঞ্চল প্রমুখ সঞ্জু দাস, যুব মোর্চার আলিপুরদুয়ার জেলা কমিটির সম্পাদক আমির প্রধান প্রমুখ। আমিরবাবু বলেন, ‘ব্রিগেড সমাবেশের প্রস্তুতি হিসেবে পদযাত্রা, মশাল মিছিল, দেওয়াল লিখন ইত্যাদি কর্মসূচি পালন করা হবে। চার দিনের মধ্যে প্রচারাভিযান সম্পূর্ণ করা হবে।’

আলিপুরদুয়ার লোকসভা কেন্দ্রটি বিজেপির দখলে রয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই বিধানসভা নির্বাচনে জেলার পাঁচটি কেন্দ্রই দখলের প্রস্তুতি নিচ্ছে বিজেপি। তাই ভোটের আগে দলের কর্মীদের ওয়ার্ম আপ করতে ব্রিগেড নিয়ে যাওয়ার জোর প্রস্তুতি নিচ্ছে দল। মাদারিহাট বিধানসভা কেন্দ্রটি বিজেপির দখলেই রয়েছে। বিধানসভা কেন্দ্রের মাদারিহাট-বীরপাড়া ব্লকে ১৯ টি ও বানারহাট ব্লকে ৫ টি চা বাগান রয়েছে। চা বাগানের শ্রমিক কর্মচারিদের ভোট মাদারিহাট বিধানসভা কেন্দ্রে ভোটের ফলাফলে প্রতিবারই নির্ণায়ক শক্তি হিসেবে কাজ করে। স্বাভাবিকভাবেই ব্রিগেড সমাবেশে কর্মীদের নিয়ে যাওয়ার ব্যাপারেও চা বাগানকে বিশেষ গুরুত্ব দিচ্ছে বিজেপি। দলের ১৮ নম্বর মণ্ডলের সহ সভাপতি মনোহর লাখোটিয়া বলেন, ‘ব্রিগেডে নিয়ে যাওয়ার ব্যাপারে চা বাগানের নেতা কর্মীদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। তবে দলের উচ্চ নেতৃত্বের দেওয়া নির্দেশিকা মেনেই কতজনকে ব্রিগেডে নিয়ে যাওয়া হবে তার সংখ্যা নির্ধারণ করা হবে।’