বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার ঘিরে চাপানউতোর

74

দিনহাটা: এক ব্যক্তির ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারের ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে কোচবিহারের সিতাই বিধানসভার হোকদহ গ্রামে। মৃতের নাম অনিল বর্মন। তিনি বিজেপির কর্মী ছিলেন বলে জানা গিয়েছে। ঘটনায় অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে। অনিলকে মেরে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ বিজেপির। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তৃণমূল নেতৃত্ব। যেকোনও মৃত্যুর ঘটনায় রাজনীতির রং লাগানোর চেষ্টা করা হচ্ছে বলে দাবি করেন তাঁরা। এই ঘটনাকে ঘিরে শুরু হয়েছে রাজনৈতিক তরজা।

বিজেপি সূত্রে জানা গিয়েছে, হোকদহ গ্রামের বিজেপি কর্মী অনিল বর্মন নির্বাচনের ফল ঘোষণা হওয়ার পর থেকে বাড়িছাড়া ছিলেন। শনিবার তিনি বাড়িতে ফেরেন। বিকেল নাগাদ ফের বাড়ি থেকে বেরিয়ে যান। রাতে বাড়ি না ফেরায় পরিবারের লোকেরা তাঁর খোঁজ শুরু করেন। রবিবার সকালে বাড়ি থেকে কিছুটা দূরে অনিলের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা তাঁকে মেরে ঝুলিয়ে দিয়েছে বলে অভিযোগ বিজেপির।

- Advertisement -

জেলা বিজেপি সভানেত্রী মালতী রাভা রায়ের অভিযোগ, তাঁদের কর্মীকে খুন করে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে। কোচবিহারে গণতন্ত্র বলে কিছু নেই। প্রশাসনকে জানিয়ে কোনও লাভ হচ্ছে না বলেও অভিযোগ করেন তিনি। যদিও সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেন তৃণমূলের জেলা সভাপতি পার্থপ্রতিম রায়। তাঁর দাবি, বিজেপি সমস্ত মৃত্যুতে রাজনীতির রং লাগাচ্ছে। দেহ ময়নাতদন্তের পর গোটা বিষয়টি পরিষ্কার হয়ে যাবে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে সিতাই থানার পুলিশ।