দলীয় কর্মীদের হাতে আক্রান্ত বিজেপির জেলা সম্পাদক, চাঞ্চল্য

179

কালিয়াগঞ্জ: কালিয়াগঞ্জে ঢুকতে গিয়ে মদনপুর এলাকায় নিজের দলের কর্মীদের হাতে আক্রান্ত বিজেপির জেলা সম্পাদক। প্রার্থী ভেবে দলের জেলা সম্পাদককে কালিয়াগঞ্জ থেকে তাড়ালেন বিজেপি কর্মীরা।

বুধবার সকালে কালিয়াগঞ্জ বিধানসভার বিজেপির প্রার্থী সৌমেন রায়ের রায়গঞ্জ বিজেপির জেলা কার্যালয় থেকে জেলা নেতাদের সাথে কালিয়াগঞ্জের স্থানীয় বিবেকানন্দ মোড় হনুমান ভবনে সাংগঠনিক কার্যকর্তাদের সঙ্গে প্রার্থী পরিচিতি পর্ব কর্মসূচিতে যোগদানে কথা ছিল। সেই মোতাবেক হনুমান ভবনে হাজির হন প্রত্যেক কার্যকর্তা। প্রথমে খবর ছিল স্থানীয় বয়স্করা কালিমাতার মন্দিরে প্রনাম করে রাজনৈতিক কর্মসূচিতে যোগ দেবেন। কিন্তু, খবর আসে বিজেপি প্রার্থীর গাড়ি সহ বিজেপির জেলা সম্পাদকের গাড়ি মদনপুর সংলগ্ন এলাকায় স্থানীয় গ্রামবাসীদের দ্বারা আক্রান্ত হয়েছে।

- Advertisement -

সূত্র মারফৎ জানা গিয়েছে, তিনটি গাড়ির নিয়ে কালিয়াগঞ্জের বিজেপি প্রার্থী কালিয়াগঞ্জে আসছিলেন তাঁর গাড়ি বিক্ষোভ থেকে কিছুটা দূরুত্বে থাকায় অবস্থা বেগতিক দেখে তৎক্ষনাৎ গাড়ির মুখ ঘুরিয়ে রায়গঞ্জের দিকে রওনা হয়। এদিকে জেলা সম্পাদকের গাড়ি সামনে থাকায় স্থানীয় মানুষের দ্বারা আক্রান্ত  হন তিনি, স্থানীয়দের রোষে বাঁশ দিয়ে ভেঙ্গে ফেলা হয় তাঁর গাড়ির কাঁচ। জেলা সম্পাদক প্রকাশ প্রুস্তি গাড়ি থেকে নেমে এলে তাকে উদ্দেশ্য করে ধাওয়া দেয় স্থানীয় মানুষ কাঁধে, হাতে আঘাত লাগে তাঁর। এদিকে, স্থানীয় হনুমান ভবনে প্রার্থীকে নিয়ে চলে তুমুল বিক্ষোভ প্রদর্শন। দুপুর গড়াতেই বিবেকানন্দ মোড়ে প্রার্থী পরিবর্তনের দাবিতে সোচ্চার হয়ে টায়ার জ্বালিয়ে রাস্তা অবরোধ করে স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্ব।

এদিকে জেলা বিজেপির সম্পাদক প্রকাশ প্রুস্তি বলেন, ‘আমি শারিরীক এবং মানসিকভাবে আহত। আমার উপর রাস্তা আটকে কিছু অচেনা মানুষ হামলা করেন। আমি বিষয়টি দলের ঊর্ধ্বতন  কতৃপক্ষের কাছে জানাব।’

এই বিষয়ে জেলা বিজেপির সভাপতি বিশ্বজিৎ লাহিড়ী সভাপতি বলেন, ‘আজকের বিষয়টি শুনেছি। বিরোধী রাজনৈতিক দলের চক্রান্ত হতে পারে। তবে দলের অনুশাসন মেনে প্রত্যেকের চলা উচিত।’