শুভেন্দুর জন্য বিজেপির দরজা খোলা: দিলীপ ঘোষ  

686

কলকাতা: শুভেন্দু অধিকারী তৃণমূলে থাকছেন, তা মঙ্গলবার রাতে দলীয় বৈঠকে স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে। কিন্তু তারপরও আশা ছাড়ছে না বিজেপি। গেরুয়া শিবিরের তরফে জানানো হয়েছে, শুভেন্দু অধিকারীর জন্য বিজেপির দরজা এখনও খোলা। তিনি বিজেপিতে এলে উপযুক্ত সম্মান পাবেন। না এলেও বিজেপির কোনও ক্ষতি হবে না।

উল্লেখ্য, কিছুদিন ধরেই তৃণমূলের দাপুটে নেতা শুভেন্দু অধিকারীর রাজনৈতিক ভবিষ্যত নিয়ে জল্পনা চলছে। তিনি মন্ত্রীত্ব ছাড়ার পর সেই জল্পনা আরও বাড়ে। কোচবিহার দক্ষিণের তৃণমূল বিধায়ক মিহির গোস্বামীর বিজেপিতে যোগদানের পর শুভেন্দুবাবুও বিজেপিতে যেতে পারেন বলে চর্চা চলছিল রাজ্য রাজনীতিতে। কিন্তু মঙ্গলবার রাতে দু’ঘণ্টার বৈঠকে সেসব জল্পনার অবসান হয়েছে বলে দাবি তৃণমূলের শীর্ষ নেতাদের। তাঁদের দাবি, সমস্ত সমস্যা মিটে গিয়েছে। যদিও এবিষয়ে শুভেন্দুবাবুর তরফে এখনও কিছু জানানো হয়নি।

- Advertisement -

তৃণমূল সূত্রের খবর, মঙ্গলবার রাতে উত্তর কলকাতার শ্যামবাজার লাগোয়া একটি বাড়িতে বৈঠকে বসেন তৃণমূল সাংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্য়ায়, শুভেন্দু অধিকারী। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন প্রবীণ তৃণমূল সাংসদ সৌগত রায়, সুদীপ বন্দ্যোপাধ্যায় ও তৃণমূলের ভোট কৌশলী প্রশান্ত কিশোরও। বৈঠকের পর সৌগতবাবুর দাবি, ‘সমস্যা মিটে গিয়েছে। শুভেন্দু জানিয়েছেন, উনি দল ও বিধায়ক পদ-কোনওটাই ছাড়ছেন না। আমরা সবাই দলকে ভালবাসি।’ তবে এব্যাপারে শুভেন্দুবাবুর কোনও বক্তব্য জানা যায়নি। শুভেন্দুর বাবা তথা তৃণমূল নেতা শিশির অধিকারীও বলেন, ‘সমস্যা মিটে গেলেই ভালো। এতে দলেরই মঙ্গল।’

শুভেন্দুর বিজেপিতে যোগদান নিয়ে গত কয়েকদিন ধরে রাজ্য রাজনীতিতে যে জল্পনা চলছিল মঙ্গলবার রাতে বৈঠকের পর সেই জল্পনার কার্যত অবসান হল। তবে বিজেপির রাজ্য পর্যবেক্ষক কৈলাস বিজয়বর্গীয় হোক বা বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, সকলেই স্বীকার করে নিয়েছেন, শুভেন্দুবাবু কাজের লোক। তিনি বিজেপিতে এলে দলের উপকার হবে। দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘শুভেন্দুর জন্য বিজেপির দরজা খোলা আছে। দলে এলে ওঁনাকে স্বাগত। তবে না এলেও বিজেপি সরকার গড়বে।‘