মুজনাই নদী থেকে উঠে আসা বোয়ালের ছড়াছড়ি দেওগাঁওয়ে

285

রাঙ্গালিবাজনা: বর্ষাকালে নালার স্রোতের বিপরীতে মুজনাই নদী থেকে উঠে আসছে নানা মাপের সুস্বাদু বোয়াল মাছ। জাম্পোই থেকে শুরু করে মাঠ, পাটখেত, বীজতলা, পাট পচানোর পুকুরেও ঢুকে পড়ছে বোয়াল মাছ। ছোট পুকুর, জাম্পোইয়ে ওই বোয়াল মাছ ধরে ভুরিভোজ সারছেন মাদারিহাটের খয়েরবাড়ি, ইসলামাবাদ ও ফালাকাটা ব্লকের দেওগাঁওয়ের বাসিন্দাদের অনেকেই। বুধবার মধ্য দেওগাঁয়ের জাম্পোইয়ে ১০ কেজি সাইজের বোয়াল মাছও ধরা পড়েছে। এদিকে, মাস দেড়েক ধরে বোয়াল মাছ শিকার করে চলেছেন উত্তর দেওগাঁওয়ের রাভাপাড়ার বাসিন্দারা। দল বেঁধে বোয়াল মাছ ধরতে নামছেন তাঁরা।

দেওগাঁও ও খয়েরবাড়ি গ্রাম পঞ্চায়েতের পশ্চিম সীমানা বরাবর বয়ে গিয়েছে মুজনাই নদী। বিস্তীর্ণ এলাকার মাঠের জল বিভিন্ন নালা বা জাম্পোই বেয়ে গড়িয়ে পড়ে মুজনাই নদীতে। উত্তর দেওগাঁওয়ে এরকম একটি নালাকে ‘ধরধরা’ বলেন স্থানীয় বাসিন্দারা। তাঁরা জানান, ওই নালা দিয়ে প্রতিবছর বর্ষার শুরুতে স্রোতের বিপরীতে মুজনাই নদী থেকে উঠে আসে ঝাঁকে ঝাঁকে বোয়াল মাছ। রাভাপাড়ার বাসিন্দা গৌতম রাভা জানান, এবছর বর্ষার শুরুতে মুজনাই নদী থেকে উঠে আসে বেশ কিছু বোয়াল মাছ। মধ্য দেওগাঁও ও উত্তর দেওগাঁওয়ের বিস্তীর্ণ এলাকায় ছড়িয়ে পড়েছে সেগুলি। ওই বোয়াল মাছগুলি ধরার অভিযানে এখন নেমে পড়েছেন তাঁরা। কেউ জাল, কেউ তির, কেউ কোচ নিয়ে নেমে পড়েছেন বোয়াল শিকারে। দেড় কেজি থেকে আড়াই কেজি ওজনের পর্যন্ত এক একটি বোয়াল ধরেছেন এলাকার রকি রাভা, অজিত রাভা, নবকুমার বর্মন সহ অনেকেই। মধ্য দেওগাঁয়ের বাসিন্দা জাহিদুল ইসলাম বলেন, ‘বিশেষ ফাঁদ পেতে এলাকায় বোয়াল মাছ শিকার করছেন বাসিন্দারা। বুধবার ১০ কেজি ওজনের একটি বোয়াল মাছও ধরা পড়েছে।’

- Advertisement -