তুফানগঞ্জ, ২০ নভেম্বরঃ এক তৃণমূল নেতার বাড়ির সামনে থেকে উদ্ধার হল তিনটি কৌটা বোমা। বুধবার এই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে তুফানগঞ্জের দেওচড়াই গ্রাম পঞ্চায়েতের কৃষ্ণপুর গ্রামের ঘনাপাড়ায়। বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতিরা এই বোমা রেখে গিয়েছে বলে অভিযোগ তৃণমূল নেতা মতিয়ার রহমানের। তাঁর অভিযোগ, লোকসভা ভোটের পর থেকে তাঁর ওপর নানাভাবে অত্যাচার চালাচ্ছে বিজেপি। মঙ্গলবার তাঁর জমির ধান কাটতে বাধা দেওয়ার অভিযোগ ওঠে বিজেপি কর্মীদের বিরুদ্ধে। এই ঘটনার পরের দিন সকালে তাঁর বাড়িতে বোমা পাওয়া যায় বলে অভিযোগ।

তৃণমূল নেতার অভিযোগ, ‘বিজেপি নানাভাবে আমার ওপর অত্যাচার চালাচ্ছে। এ বিষয়ে তুফানগঞ্জ থানায় বারবার লিখিত অভিযোগ জানানো হয়েছে। সেই অভিযোগ তুলতেই আমার জমির ধান কাটা বন্ধ করে দেয় বিজেপি কর্মীরা। আমার ওপর চাপ তৈরি করতেই বিজেপি বাড়িতে বোমা রেখে যায়। আমার মা এদিন সকালে বোমাগুলি দেখতে পান। পরে বিষয়টি জানাজানি হয়। পুলিশ এসে সেগুলি উদ্ধার করে নিয়ে যায়।’

যদিও বিজেপি নেতা বিশ্বজিৎ রায় বলেন, ‘এই ঘটনায় আমাদের কোনও কর্মীর যোগ নেই। কৃষ্ণপুর এলাকায় তৃণমূলের পায়ের নীচের মাটি সরে যাওয়ায় এই সব মিথ্যা অভিযোগ রটাচ্ছে। আমরা খোঁজ নিয়ে জানতে পেরেছি, তৃণমূলের গোষ্ঠী কোন্দলের জেরে ঘটনাটি ঘটেছে।’

তুফানগঞ্জ থানার পুলিশ জানিয়েছে, এদিন কৃষ্ণপুর এলাকার বাসিন্দা মতিয়ার রহমানের বাড়ি থেকে তিনটি বোমা উদ্ধার করা হয়েছে। কে বা কারা বোমাগুলি রেখে গিয়েছে, তা নিয়ে তদন্ত শুরু হয়েছে।