সীমান্তে উত্তেজনা, বড়সড় সংঘর্ষের আশঙ্কা বিপিন রাওয়াতের

1035

নয়াদিল্লি: চিন-ভারত সম্পর্কে ফাটল ধরা শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যে। সেই সম্পর্ক নিয়ে উদ্বেগে বিনা প্ররোচনায় সেনা হামলার জেরে সীমান্তে বড়সড় অশান্তি ঘটতে পারে। আর এই কথা বললেন স্বয়ং চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়াত। পাশাপাশি, পূর্ব লাদাখে প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় পরিস্থিতি অত্যন্ত উত্তেজনাপূর্ণ অবস্থায় থাকায় তিনি নিজে যথেষ্ট উদ্বিগ্ন।

লাদাখ পরিস্থিতি নিয়ে শুক্রবার থেকে শুরু হবে ভারত-চিন কমান্ডার পর্যায়ের অষ্টম রাউন্ড। এর মধ্যে ন্যাশনাল ডিফেন্স কলেজের এক ওয়েবিনারে রাওয়াত জানালেন, ভারতের অবস্থান বিন্দুমাত্র পরিবর্তিত হয়নি, প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় কোনওরকম পরিবর্তন বরদাস্ত করা হবে না। ভারতীয় সেনার দৃঢ় প্রতিক্রিয়ায় চিনের পিপলস লিবারেশন আর্মি লাদাখে অপ্রত্যাশিত পরিস্থিতির মুখোমুখি হয়েছে।

- Advertisement -

এদিন তাঁর কথায়, ভারতের ক্ষমতা যত বাড়বে, নিরাপত্তা জনিত সমস্যাও বাড়বে তার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে। সেনার প্রয়োজনীয়তা বুঝে দেশীয় প্রযুক্তিতে অস্ত্রশস্ত্র তৈরির জন্য কোনও দেশ আমাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা চাপানোর হুমকি দিলে তাতে কান দিলে চলবে না। বাড়তে থাকা চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হতে প্রয়োজনীয় মিলিটারি শক্তি অত্যন্ত জরুরি।

অন্যদিকে, মে মাস থেকে লাদাখে ভারত-চিনের মধ্যে অচলাবস্থা চলছে। ২০ জুন গালওয়ান উপত্যকায় দুদেশের সেনার মধ্যে রক্তাক্ত সংঘর্ষ হয়। ভারতীয় সেনা প্যাংগং সো-র নয়া শৃঙ্গ জয় করার পর চিনা সেনা তাদের কাছাকাছি আসতে গেলে শূন্যে গুলি চলে। প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখায় গুলি চলার ঘটনা বহু বছরের মধ্যে এই প্রথম।