শিলিগুড়ি, ১ সেপ্টেম্বরঃ শনিবার রাতে উত্তরবঙ্গ রাষ্ট্রীয় পরিবহণ সংস্থার একটি বাস থেকে এক ট্রাকচালককে রিভলভার দেখানোকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়ায় উত্তরকন্যা সংলগ্ন এলাকায়। বাস ও ট্রাকচালকের মধ্যে ওভারটেক নিয়ে কথা কাটাকাটির সময় বাসের এক যাত্রী ট্রাকচালককে রিভলভার দেখিয়ে হুমকি দেয় বলে অভিযোগ। রিভলভার দেখে ট্রাকচালক নিজের গাড়িতে ফিরে যান। কিন্তু তিনি বাসের পিছন পিছন আসছিলেন। ফুলবাড়ি এলাকায় বাসটি পৌঁছাতেই ট্রাকের চালক তাপস দাস তাঁর পরিচিতদের ফোন করেন। স্থানীয়রা এসে বাসটিকে ঘিরে ফেলেন। বাসে লোকজন উঠতেই ফের রিভলভার বের করে হুমকি দেয় অভিযুক্ত। গোলমাল বাড়তে থাকায় এক মহিলা সঙ্গীর হাতে রিভলভারটি দিয়ে পালানোর চেষ্টা করেন ওই ব্যক্তি। ওই মহিলা পালিয়ে গেলেও ওই ব্যক্তিকে ধরে ফেলেন স্থানীয়রা। উত্তেজিত জনতা বাসটিকে লক্ষ্য করে ইট ছুড়তে শুরু করে। তাতে আহত হন এক যাত্রী। শেষ পর্যন্ত যাত্রীসহ বাসটিকে নিউ জলপাইগুড়ি থানায় নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে গিয়ে যাত্রীদের তল্লাশি চালানো হয়। ওই মহিলার ফেলে যাওয়া ব্যাগ থেকে ছুরি, স্ক্রু ড্রাইভার পাওয়া গেলেও রিভলভারের খোঁজ মেলেনি। স্থানীয়দের দাবি, মহিলা রিভলভারটিকে পাশের ঝোপে ছুড়ে ফেলে দিয়েছেন। রাত পর্যন্ত তল্লাশি চালানোর পর ট্রাকচালক, খালাসি ও অভিযুক্ত ব্যক্তিকে আটক করেছে নিউ জলপাইগুড়ি থানার পুলিশ। পুলিশ একটি সূত্র জানিয়েছে, অভিযুক্ত ব্যক্তি ও তার মহিলা সঙ্গীর অন্য কোনো অপারেশনের ছক থাকতে পারে। তবে প্রকাশ্যে পুলিশ কোনো মন্তব্য করতে চায়নি।