কোচবিহারের এমজেএন স্টেডিয়ামে বসছে ফ্লাডলাইট

99

কোচবিহার: দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর কোচবিহার এমজেএন স্টেডিয়ামে ফ্লাডলাইট বসানোর বাকি অংশের কাজ শুরু হয়েছে। গত বছরের শুরুতে কাজটি সম্পন্ন হওয়ার কথা থাকলেও করোনা পরিস্থিতির জেরে তা হয়নি। উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন দপ্তরের তরফে খেলাধুলোর স্বার্থে সেই প্রকল্পটি গ্রহণ করা হয়েছিল। স্টেডিযামে চারটির মধ্যে তিনটি ফ্লাড লাইটের কাজ প্রায় শেষ। বাকিও শীঘ্রই সম্পন্ন হবে বলে দপ্তর সূত্রে জানা গিয়েছে।

২০১৯ সালের শেষের দিকে কোচবিহারের এমজেএন স্টেডিয়ামে ফ্লাডলাইট বসানোর কাজ শুরু হয। তিনমাসের মধ্যেই কাজ শেষ করার লক্ষ্যমাত্রা নেওয়া হয়েছিল। উত্তরবঙ্গ উন্নয়ন দপ্তরের উদ্যোগে ঐতিহ্যবাহী এই স্টেডিয়ামে চারটি ফ্লাড লাইটের কাজ শুরু হয়। এই প্রকল্প বাস্তবায়িত হলে বিভিন্ন ধরণের নৈশ খেলা এখানে শুরু করা হবে। চারটি ফ্লাডলাইট বসানোর কাজ চলছে। কোচবিহার শহরের প্রাণকেন্দ্রে রাসমেলা মাঠের পাশে রয়েছে এমজেএন স্টেডিয়াম। রাজ আমলে তৈরি এই স্টেডিয়ামে বিভিন্ন খেলাধুলো হয়ে থাকে। করোনার জেরে বর্তমানে তুলনামূলক কম থাকলেও অন্য সময় সেখানে নিয়মিত খেলাধুলো প্র্যাক্টিস করা হয। রাজবাড়ির পাশে কোচবিহার স্টেডিয়াম তৈরির আগে এটিই ছিল কোচবিহারের একমাত্র স্টেডিয়াম। পরে কোচবিহার স্টেডিয়াম তৈরির পর এমজেএন স্টেডিয়ামের গুরুত্ব অনেকটাই কমে যায়। বেশিরভাগ খেলাধুলোরই আয়োজন করা হয় কোচবিহার স্টেডিয়ামে। তাই এমজেএন স্টেডিয়ামের গুরুত্ব বাড়াতে সেখানে ফ্লাডলাইট বসানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এতদিন নৈশ খেলাগুলির ক্ষেত্রে মাঠে আলোর ব্যবস্থা করতে হত আয়োজকদের। এবার ফ্লাডলাইট বসানো হয়ে গেলে নৈশ খেলাগুলির চাহিদাও বাড়বে বলে মনে করছে জেলার ক্রীড়ামহল। কোচবিহার জেলা ক্রীড়া সংস্থার অন্যতম কর্মকর্তা সুব্রত দত্ত জানান, এই প্রকল্পের কাজ সম্পন্ন হলে রাতের খেলাধুলোর অনেক সুবিধা হবে।

- Advertisement -