বাইক চালিয়ে দিল্লি থেকে মালদায় ফিরলেন করোনা সংক্রামিত যুবক

590

পুরাতন মালদা: করোনা সংক্রমণ নিয়েই দিল্লি থেকে বাইকে করে মালদা ফিরলেন এক যুবক। বৃহস্পতিবার দিল্লির একটি হাসপাতাল থেকে তাঁর করোনা পজিটিভ রিপোর্ট মালদা স্বাস্থ্য দপ্তরের কাছে পৌঁছায়।

ওই যুবক তাঁর করোনা সংক্রমণের বিষয়টি না জানায়, আজ ভোরে জেলায় ফিরেই মালদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ফ্লু ক্লিনিকে চলে যান। সেখানেই দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করার পর মালদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাঁকে পুরাতন মালদার কোভিড হাসপাতালে ভর্তি করে।

- Advertisement -

কোভিড হাসপাতাল সূত্রে খবর, ওই যুবক চাঁচল-১ নম্বর ব্লকের গালিমপুরের বাসিন্দা। তিনি দিল্লিতে শ্রমিকের কাজ করতেন। চলতি মাসের ৫ তারিখ দিল্লিতে তাঁর জ্বর ও শ্বাসকষ্ট হওয়ায় সেখানে দিল্লির রাম মনোহর লোহিয়া হাসপাতালে তাঁর লালার নমুনা পরীক্ষা করা হয়। তবে পরীক্ষার রিপোর্ট আসার আগেই তিনি বাইক নিয়ে মালদার উদ্দেশ্যে রওনা দেন। পাঁচদিন বাইক চালিয়ে আজ ভোরে মালদায় এসে পৌঁছান তিনি। তবে চাঁচলে নিজের গ্রামে না ফিরে তিনি মালদা মেডিকেলে যান।

অন্যদিকে, এদিনই দিল্লির রাম মনোহর লোহিয়া হাসপাতাল থেকে ওই ব্যক্তির করোনা সংক্রমণের খবর মালদা জেলা স্বাস্থ্য দপ্তরকে জানানো হয়। এরপরই ওই যুবককে তড়িঘড়ি পুরাতন মালদার কোভিড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এই বিষয়ে মালদা জেলার মুখ্য স্বাস্থ্য আধিকারিক ডাঃ ভূষণ চক্রবর্তী বলেন, ‘দিল্লি থেকে ওই যুবকের করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আমাদের কাছে এসে পৌঁছানোর পরই তাঁকে দ্রুত কোভিড হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তিনি দিল্লি থেকেই করোনা সংক্রামিত হয়ে ফিরেছেন। সব মিলিয়ে এদিন জেলায় মোট ১৮ জনের করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ল।’ ওই যুবক যে ভাবে প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে বাইকে করে মালদায় ফিরেছেন তাতে আশঙ্কিত সকলেই। সব মিলিয়ে মালদা জেলায় মোট করোনা সংক্রামিতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ২৫০।