পালাল করোনা পজিটিভ প্রৌঢ়, ধরা পড়ল আট কিলোমিটার দূরে 

ফাইল চিত্র

মোস্তাক মোরশেদ হোসেন, রাঙ্গালিবাজনা: স্বাস্থ্য দপ্তরের কর্মী ও পুলিশ আসার খবর পেয়ে গা ঢাকা দিলেন করোনায় সংক্রমিত ব্যক্তি! আলিপুরদুয়ার জেলার মাদারিহাট বীরপাড়া ব্লকের দক্ষিণ খয়েরবাড়ি গ্রামে শুক্রবার সন্ধ্যায় ওই ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়ায়।

এলাকার বাসিন্দারা ওই ব্যক্তির ওপর ক্ষোভে ফেটে পড়েন। ঘণ্টাখানেক পর অবশ্য প্রায় আট কিলোমিটার দূরে মাদারিহাট চৌপথির কাছে তাঁকে পাওয়া গিয়েছে বলে জানান মাদারিহাট থানার ওসি টিএন লামা। মাদারিহাট বীরপাড়া ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক দেবজ্যোতি চক্রবর্তী বলেন, বীরপাড়া হাসপাতালে ওই ব্যক্তির লালা পরীক্ষা করা হয়েছিল।

- Advertisement -

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বছর পঞ্চাশের ওই প্রৌঢ় জয়গাঁয় মিস্ত্রির কাজ করেন। পাঁচদিন আগে ওই ব্যক্তিকে বুকের ব্যথার জন্য বীরপাড়া রাজ্য সাধারণ হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়েছিল। শুক্রবারই তাঁকে ছাড়া হয়। এরপর তিনি জয়গাঁ যান। বিকেলে তিনি দক্ষিণ খয়েরবাড়ির বাড়িতে আসেন। এদিকে তাঁর লালায় করোনার অস্তিত্ব মেলায় তাঁকে কোভিড হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার জন্য হাজির হন পুলিশকর্মী ও স্বাস্থ্যকর্মীরা। কিন্তু ততক্ষণে সাইকেল নিয়ে চম্পট দেয় ওই ব্যক্তি।

এলাকার বাসিন্দাদের বক্তব্য, অত্যন্ত গর্হিত কাজ করেছেন ওই ব্যক্তি। মাদারিহাট থানার ওসি বলেন, ওই ব্যক্তিকে মাদারিহাট বিডিও অফিসের কাছে পাওয়া গিয়েছে। স্থানীয়দের সন্দেহ, পালিয়ে জয়গাঁ যাওয়ার চেষ্টা করেছিলেন ওই প্রৌঢ়। তাঁদের দাবি, ওই ব্যক্তির বাড়ি সংলগ্ন এলাকাটিকে দ্রুত কনটেনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করা হোক। ব্লক স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রের খবর, শুক্রবার সন্ধ্যে পর্যন্ত মাদারিহাট বীরপাড়া ব্লকে ওই একজনেরই করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে।