নাগরাকাটার বিধায়কের করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ

251

নাগরাকাটা: নাগরাকাটার বিধায়ক শুক্রা মুন্ডার করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ এলো। শারীরিক অসুস্থতা বোধ করায় ব্লক স্বাস্থ্য দপ্তরের তরফে গত শুক্রবার তাঁর লালার নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। সোমবার রাতে সেই রিপোর্ট নেগেটিভ এসে পৌঁছোয়। বর্তমানে সুস্থ রয়েছেন তিনি।

লকডাউনের পর থেকেই বিধানসভা এলাকার বাসিন্দাদের কাছে পৌঁছতে প্রতিদিনই তাঁকে সক্রিয় ভূমিকা পালন করতে দেখা গিয়েছে। বহু জায়গায় দুঃস্থদের খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দিতেও নিরলসভাবে তাঁকে কাজ চালিয়ে যেতে হচ্ছে। ফলে বহু মানুষের সংস্পর্শে আসতে হচ্ছে তাঁকে। অন্যদিকে বহু মানুষও তাঁর সংস্পর্শে এসেছেন। তাঁর রিপোর্ট নেগেটিভ আসায় স্বস্তির হাওয়া নাগরাকাটায়।

- Advertisement -

পাশাপাশি বিধায়ক ছাড়াও যে ১৯ জনের লালার নমুনা পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছিল সবকটির রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। ওই ১৯ জনের মধ্যে রয়েছেন ময়নাগুড়ির এক করোনা সংক্রামিতের সংস্পর্শে আসা নাগরাকাটার সুখানি বস্তির একটি পরিবারের ৯ সদস্য ও মালবাজারের এক করোনা সংক্রামিতের সংস্পর্শে আসা নাগরাকাটার ৯ বিদ্যুৎ কর্মী। রয়েছেন আরও এক বাসিন্দাও।

সব মিলিয়ে নাগরাকাটা ব্লক থেকে এখনও পর্যন্ত মোট ৫৮ জন করোনা সংক্রামিতের সন্ধান মিলেছে। তাঁদের মধ্যে ৫৫ জনই ভিনরাজ্য ফেরৎ। মৃত্যু হয়েছে দু’জনের। সর্বশেষ মৃত্যুর খবর আসে চম্পাগুড়ি এলাকার এক ৭০ বছর বয়সী মহিলার। তিনি উত্তরবঙ্গ মেডিকেল কলেজের রিকু বিভাগে গত শুক্রবার গভীর রাতে মারা যান। তাঁর কোভিড রিপোর্ট পজিটিভ ছিল। ৫৬ জন বর্তমানে সম্পূর্ণ সুস্থ রয়েছেন।