করোনার টিকাকরণ শুরু হলদিবাড়ি গ্রামীণ হাসপাতালে

191

হলদিবাড়ি: করোনার টিকাকরণ শুরু হল হলদিবাড়ি গ্রামীণ হাসপাতালে। প্রথমে ১৫০ জন টিকাকরণের তালিকায় ছিলেন। করোনা টিকা নিয়ে ভীতি দূর করতে বুধবার প্রথম টিকা নেন ব্লক স্বাস্থ্য অধিকর্তা ডাঃ তাপসকুমার দাস। টিকা নেন হলদিবাড়ি গ্রামীণ হাসপাতালের চিকিৎসক অসীম রায়। এরপর স্বাস্থ্যকর্মীদের টিকাকরণ শুরু হয়। হলদিবাড়ি ব্লকের প্রথম মহিলা স্বাস্থ্যকর্মী হিসেবে টিকা নেন তুলি গুহ। ব্লক স্বাস্থ্য অধিকর্তা ডাঃ তাপসকুমার দাস বলেন, ‘নির্ভয়ে এই টিকা নিতে যাতে সবাই এগিয়ে আসেন সেই অনুরোধ জানাচ্ছি।’ কেউ যাতে টিকা নিয়ে কোনও প্রকার অপপ্রচার না চালান তার অনুরোধ করেন তিনি। ডাঃ অসীম রায় বলেন, ‘হাসপাতালে কোভিশিল্ড ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। এই টিকা একদম নিরাপদ। টিকাকরণ নিযে স্বাস্থ্য দপ্তর গাইডলাইন মেনে সমস্ত কাজ করা হচ্ছে।’

ব্লক স্বাস্থ্য দপ্তর সূত্রে খবর, এদিন নথিভুক্ত ৯৩ জনকে টিকা দেওয়া হয়েছে। সকলেই টিকা নেওয়ার পর সুস্থ রয়েছেন। হলদিবাড়ির ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক তাপসকুমার দাস বলেন, ‘করোনা টিকা নিয়ে মানুষের মধ্যে ভুল বার্তা প্রচার করা হচ্ছে। আমি নিজেও টিকা নিয়েছি। সম্পূর্ণ সুস্থ রয়েছি। এদিন ৯৩ জনকে টিকা দেওয়া হয়েছে। বাকিদের বৃহস্পতিবার দেওয়া হবে।’

- Advertisement -

এদিন নথিভুক্ত তালিকার একাংশ স্বাস্থ্যকর্মী করোনার টিকা নেওয়া থেকে বিরত থাকেন। এই প্রসঙ্গে অল ওয়েস্ট বেঙ্গল হেলথ অ্যাসিস্ট্যান্ট ফিমেল অ্যান্ড হেলথ সুপারভাইজার ফিমেল ওয়ার্কার্স অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য ববিতা সরকার জানান, নার্সিং ক্যাডারের স্বীকৃতি, প্রমোশন, গ্রেডেশন সহ বিভিন্ন দাবিতে আন্দোলন চলছে। সরকার তাঁদের দাবি না মানা পর্যন্ত করোনার টিকা গ্রহণ করবেন না বলে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। এদিনের তালিকায় ১৬জন প্রথম এএনএমের নাম থাকলেও একজনও ভ্যাকসিন নেননি।