মমতার পাড়ায় প্রচারে বাধা, পুলিশের বিরুদ্ধে নালিশ জানাবে সিপিএম

114
ছবি: সংগৃহীত

কলকাতা: বিজেপি প্রার্থীর পর এবার সিপিএম প্রার্থীকে প্রচারে বাধা দেওয়া হল পুলিশের তরফে। অভিযোগ, মুখ্যমন্ত্রীর পাড়ায় সিপিএম প্রার্থী শ্রীজীব বিশ্বাসকে প্রচার করতে দেওয়া হয়নি পুলিশের তরফে। ঘটনায় বচসা থেকে হাতাহাতি শুরু হয়ে যায়। প্রার্থীর সঙ্গে উপস্থিত সিপিএম নেতা সুজন চক্রবর্তী জানান, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও তাঁর দল ভীত। তাই পুলিশ প্রশাসন লেলিয়ে প্রচারে বাধা দেওয়া হচ্ছে। এবিষয়ে নির্বাচন কমিশনে নালিশ জানানো হবে বলেই মন্তব্য করেছেন তিনি।

জানা গিয়েছে, দলীয় প্রার্থীকে নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের পাড়ায় প্রচারে বেরিয়ে ছিলেন সুজন চক্রবর্তী। সেসময় পুলিশের তরফে বাধা দিয়ে স্পষ্ট করা হয়, মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবনের আশেপাশে ১৪৪ ধারা জারি থাকায় ৪ জনের বেশি ব্যক্তিকে ওই এলাকায় যেতে দেওয়া যাবে না। একইসঙ্গে স্পষ্ট করা হয়, কোনও দলীয় প্রার্থীকে সদলবলে সেখানে নির্বাচনি প্রচার করতে দেওয়া সম্ভব নয়। এরপরই তাঁদের সেখান থেকে সরিয়ে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ ওঠে। এতেই শুরু বচসার। একসময় তা হাতাহাতিতে গড়ায়। সিপিএমের দলীয় প্রার্থী সহ সুজন চক্রবর্তীর দাবি, নির্বাচনি কেন্দ্রের যে কোনও ব্যক্তির কাছে ভোট চাইতে যাওয়ার অধিকার রয়েছে যে কোনও প্রার্থীরই। যদিও পুলিশ সেই গণতান্ত্রিক অধিকারে হস্তক্ষেপ করছে। পুরোটাই করা হচ্ছে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নির্দেশে।

- Advertisement -

সুজন চক্রবর্তীর দাবি, প্রচারে ভালো সাড়া মিলেছে। তাঁর স্থির বিশ্বাস ভবানীপুর বিধানসভা কেন্দ্র থেকে দলীয় প্রার্থী জয় পেয়ে বিধানসভায় প্রথম বিধায়ক হিসেবে যোগ দেবেন। তাতেই ভীতসন্ত্রস্ত হয়ে পড়েছেন স্বয়ং মুখ্যমন্ত্রী ও তাঁর দল।