করোনাকে উপেক্ষা করে হরিরামপুরে মুখ্যমন্ত্রীর সভায় উপচে পড়া ভিড়

143

হরিরামপুর: করোনাকে বুড়ো আঙুল দেখিয়ে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হরিরামপুরের সভায় উপচে পড়ল ভিড়। করোনা সংক্রমণ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী থেকে মুখ্যমন্ত্রী সকলেই সচেতনতা বার্তা দিলেও এদিন মুখ্যমন্ত্রীর সভায় অন্য চিত্রই ধরা পড়ল। বুধবার তৃণমূল সুপ্রিমোর সভায় নেতাদের মুখে মাস্ক দেখা গেলেও কর্মী-সমর্থকদের মুখে মাস্ক ছিল না বললেই চলে। যদিও তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী বিপ্লব মিত্র জানিয়েছেন, তৃণমূল কর্মীদের মধ্যে মাস্ক দেওয়া হয়েছে।

সপ্তম দফা নির্বাচনের আগে হরিরামপুরের তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী বিপ্লব মিত্রের হয়ে এদিন জনসভা করেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ২০১১ সালের পর ফের মুখ্যমন্ত্রীর সভা ঘিরে মানুষের মধ্যে উৎসাহ ছিল চোখে পড়ার মতো। গত এক সপ্তাহ ধরে মুখ্যমন্ত্রীর সভাকে ঘিরে প্রস্তুতি চলছিল। সকাল থেকেই তৃণমূল কংগ্রেসের কর্মী-সমর্থকরা কাতারে কাতারে এএসডিএম ফুটবল মাঠে জমায়েত হন। দুপুর ১২টায় মুখ্যমন্ত্রীর সভার কথা থাকলেও একটু দেরিতে অর্থাৎ ১২টা ৩৫মিনিট নাগাদ মুখ্যমন্ত্রীর হেলিকপ্টার এসে পৌঁছায় হরিরামপুর মাঠে।

- Advertisement -

এদিন জনসভায় মুখ্যমন্ত্রী প্রথমে হরিরামপুর ও পরে জেলার ও শেষে রাজ্য সরকারের উন্নয়নের খতিয়ান তুলে ধরেন। পাশাপাশি বিপ্লব মিত্রকে ভোট দেওয়ার আহ্বান জানান। কবি শঙ্খ ঘোষের প্রয়াণে গভীর শোক প্রকাশ করেন তৃণমূল নেত্রী। পাশাপাশি করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধিতে প্রধানমন্ত্রীকে দায়ী করে জানান, তাঁর ভুলের জন্যই খেসারত দিতে হচ্ছে গোটা দেশকে।