দর্শক হাঙ্গামায় ধুন্ধুমার ইউরোপা ম্যাচে

লন্ডন : দর্শক হাঙ্গামায় তুলকালাম লন্ডনে ইউরোপা লিগের ম্যাচ। বৃহস্পতিবার নিজেদের ঘরের মাঠে অস্ট্রিয়ার ক্লাব র‌্যাপিড ভিয়েনার মুখোমুখি হয়েছিল ওয়েস্টহ্যাম ইউনাইটেড। ২-০ গোলে ম্যাচ জেতে হ্যামার্স। তবে ওয়েস্টহ্যামের জয় ছাপিয়ে চর্চায় গ্যালারিতে দুই দলের মধ্যে খণ্ড যুদ্ধ।

ম্যাচের ঠিক আগে স্টেডিয়ামে প্রবেশের সময় ওয়েস্টহ্যাম কর্তৃপক্ষের সঙ্গে বিবাদে জড়িয়ে পড়ে র‌্যাপিড ভিয়েনার প্রধান সংযোজককারী সমর্থকদের প্রতিনিধি দল। সেখান থেকেই বিবাদের শুরু। পাশাপাশি ইউরোপা লিগে এটি ছিল ওয়েস্টহ্যামের প্রথম হোম ম্যাচ। তাই কর্তৃপক্ষের তরফে দর্শক সমর্থকদের জন্য কিক অফের আগে বিশেষ লেজার-শো ব্যবস্থা করা হয়েছিল। কিন্তু সেইদিকে আগ্রহ দেখানো দূরঅস্ত, স্টেডিয়ামে আলো বন্ধ হতেই দুই দলের সমর্থকরা একে অপরের উদ্দেশে জলের বড় ব্যারেল ছুড়তে থাকেন। শেষে পুলিশ ও নিরাপত্তারক্ষীদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি কিছুটা নিয়ন্ত্রণে আসে। তবে সেটাও সাময়িক।

- Advertisement -

২৮ মিনিটে ডেকলান রাইসের গোলের পর ফের উত্তপ্ত হয় গ্যালারি। ভিয়েনা সমর্থকরা গ্যালারির যেদিকে বসে ছিলেন সেদিকে উড়ে আসতে থাকে ক্র‌্যাকার, মিসাইল। পাল্টা জবাব দিতে ছাড়েননি ভিয়েনা সমর্থকরাও। দুপক্ষের ঝামেলায় শেষে নিশানায় পরিণত হন ফুটবলাররা। তাঁদের লক্ষ্য করে বোতল এসে পড়ে মাঠের মধ্যে। কর্ণার নেওয়ার সময় অল্পের জন্য ক্র‌্যাকার-মিসাইলের হাত থেকে রক্ষা পান ওয়েস্টহ্যামের অ্যারন ক্রেসওয়েল। হাতাহাতি ঠেকাতে গ্যালারিতে নামানো হয় পুলিশ। তিনজনকে গ্রেফতারও করা হয়। গোটা ঘটনায় ক্ষুব্ধ উয়েফাও। তাদের তরফে তদন্তের কথা জানানো হয়েছে।

তবে লন্ডন স্টেডিয়ামে দর্শক হাঙ্গামার কুখ্যাতি নতুন নয়। ২০১৬-তে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে ওয়াটফোর্ড এবং মিডলসবার্গ ম্যাচে প্রতিপক্ষ সমর্থকদের সঙ্গে ঝামেলায় জড়িয়েছিল হ্যামার্স। তালিকায় রয়েছে চেলসি সমর্থকদের সঙ্গে বিবাদের ঘটনাও।