গৃহবধূর গলাকাটা দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য

71

রায়গঞ্জ: এক গৃহবধূর গলা কাটা দেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য ছড়াল। বুধবার সকালে ঘটনাটি ঘটেছে ইটাহার থানার কাপাশিয়া পঞ্চায়েতের ছিলামপুর গ্রামে। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃতার নাম সাবিনা বিবি। ইটাহার থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রায়গঞ্জ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালে পাঠায়। মৃতার পরিবারের অভিযোগ, মেয়েকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে খুন করেছে সাবিনার স্বামী হারুন অল রসিদ ও তার পরিবারের লোকজন। অভিযুক্তদের কঠোর শাস্তির দাবিতে থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন মৃতার বাবা। অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, এলাকার বাসিন্দা আমেনুল রহমানের মেয়ে সাবিনা বিবির সঙ্গে গত পাঁচ বছর আগে পাশ্ববর্তী গ্রামের বাইদুর রহমানের ছেলে হারুন অল রসিদের বিয়ে হয়। হারুন অল রসিদ ভিন রাজ্যে শ্রমিকের কাজ করলেও লকডাউনে বাড়িতে থেকে দিন মজুরের কাজ করতেন। বছর খানেক ধরে মাঝেমধ্যেই স্ত্রী সাবিনাকে মারধর সহ নানাভাবে অত্যাচার করতেন হারুন অল রসিদ এবং তার পরিবারের লোকজন।

- Advertisement -

মৃতার বাবা আমেনুল রহমান জানান, অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে মাঝেমধ্যেই বাড়ি চলে আসেন সাবিনা। দু’দিন আগে ফের সাবিনার উপর অত্যাচার হলে বাড়িতে চলে আসে। মঙ্গলবার রাতে হারুন অল রসিদ সাবিনাকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। এদিন সকালে বাড়ি থেকে কিছুটা দূরত্বে সাবিনার গলা কাটা দেহ গ্রামবাসীর নজরে আসে। শরীরে একাধিক ধারালো অস্ত্রের আঘাতও রয়েছে।

ঘটনা চাউর হতেই গা ঢাকা দিয়েছেন অভিযুক্ত স্বামী সহ পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা। ইটাহার থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে অভিযুক্তদের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে।