বসন্ত উৎসবে ‘খেলা হবে’ গান নিয়ে বিতর্ক

107

বক্সিরহাট: বসন্ত উৎসবে ‘খেলা হবে’ গান নিয়ে রাজনৈতিক বিতর্ক দানা বেঁধেছে বক্সিরহাট কলেজে। রবিবার দুপুরে কলেজের উলটো দিকের ফাঁকা মাঠে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের বক্সিরহাট কলেজ ইউনিটের তরফে বসন্ত উৎসবের আয়োজন করা হয়। এদিন উৎসবের শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত চলে ‘খেলা হবে’ গান। ওই গানের ছন্দেই ছাত্রছাত্রীরা আবির নিয়ে মেতে ওঠে রংয়ের উৎসবে। আর ওই গান নিয়েই শুরু হয়েছে রাজনৈতিক বিতর্ক। এনিয়ে তৃণমূল ছাত্র পরিষদকে কটাক্ষ করতেও ছাড়েনি আরএসএস ছাত্র সংগঠন এবিভিপি।

আরএসএস-এর ছাত্র সংগঠন এবিভিপির কোচবিহার জেলা কমিটির সহ সংযোজক তথা বক্সিরহাট কলেজের ছাত্র গোবিন্দ পণ্ডিত এদিনের দোল উৎসবকে কটাক্ষ করে বলেন, ‘তৃণমূল ছাত্র পরিষদের নামে কিছু বহিরাগত বাংলার বসন্ত উৎসবের চিরাচরিত সংস্কৃতিকে বিসর্জন দিয়ে ‘খেলা হবে’ গান বাজিয়ে উদ্যাম নাচে মেতেছে। সেই সঙ্গে উৎসবের নাম করে কিছু ছাত্রছাত্রীকে ভুল বুঝিয়ে উৎসবকে রাজনীতির মাঠে নামিয়েছে।’ তাঁর অভিযোগ, ‘তৃণমূল ছাত্র পরিষদ বক্সিরহাট কলেজকে নিজেদের দলীয় কার্যালয়ে পরিণত করেছে। আমরা এই তীব্র ধিক্কার জানাই।’

- Advertisement -

এবিষয়ে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের বক্সিরহাট কলেজ ইউনিটের সভাপতি আবুবক্কর সিদ্দিকি অবশ্য জানান, প্রতিবছরের মতো এবারও তাঁরা সংগঠনের বক্সিরহাট কলেজ ইউনিটের তরফে বসন্ত উৎসব করছেন। উৎসবে ‘খেলা হবে’ গান বাজানোতে কোনও অন্যায় নেই। কারণ বর্তমানে ‘খেলা হবে’ এটা মানুষের আবেগ। এই গান শুধু এরাজ্যেই নয়, প্রতিবেশী অসম সহ সারা ভারতেই চলছে। তিনি জানান, এখন ভোটের সময় হলেও তাঁদের উদ্দেশ্য শুধুমাত্র উৎসব। তবে কেউ যদি এটাকে ভোট প্রচার মনে করেন তবে সেটা তাঁর নিজস্ব ব্যপার।