ম্যাচ ধরে এগোনোর পরামর্শ ধনরাজের

নয়াদিল্লি : তাঁর ট্রফি ক্যাবিনেটে অনেককিছুই আছে। নেই শুধু অলিম্পিক পদকটা। ১৯৯২ থেকে ২০০৪ চারবার অলিম্পিকে প্রতিনিধিত্ব করলেও সেই আক্ষেপ মেটেনি ধনরাজ পিল্লাইয়ের।

তবে তাঁদের প্রজন্ম না পারলেও মনপ্রীত সিংরা টোকিও অলিম্পিকের মঞ্চে ভারতীয় হকির পদকভাগ্য ফেরাবেন স্বপ্ন দেখছেন বছর ৫২-র ধনরাজ। প্রাক্তন ভারত অধিনায়কের কথায়, ভারতীয় হকি দলকে নিয়ে আমি আশাবাদী। গত পাঁচ বছরে দলের পারফরমেন্স যথেষ্ট নজরকাড়া। ফিটনেস এই দলটার সবচেয়ে বড় সম্পদ। এখনকার সাপোর্ট সিস্টেম আগে আমাদের সময় ছিল না। সেটা কাজে লাগানোর সুযোগ বর্তমান প্রজন্মের রয়েছে। আমার বিশ্বাস, ভারতীয় দল টোকিও থেকে পদক জিতে ফিরবে।

- Advertisement -

২৩ জুলাই থেকে শুরু এবারের অলিম্পিক। তার আগেই ভারতীয় হকি দল রওনা দেবে টোকিও-র উদ্দেশে। দেশছাড়ার আগে মনপ্রীত, হরমনপ্রীত সিংদের সঙ্গে দেখা করার ইচ্ছা ছিল ধনরাজের। কিন্তু কোভিড সতর্কতায় শেষপর্যন্ত সে ইচ্ছাপূরণ হয়নি। বাধ্য হয়ে পুরুষ ও মহিলা দলের অধিনায়ক মনপ্রীত এবং রানি রামপালকে চিঠি লিখে সাফল্য কামনা করেন প্রাক্তন হকি তারকা। ধনরাজের কথায়, অলিম্পিকে খেলতে যাওয়াটা অ্যাথলিটদের জীবনের সেরা মুহূর্ত। এই পরিস্থিতিতে শান্ত ও দৃঢ় থাকা খুব দরকার। আমি পুরুষ ও মহিলা উভয় দলকেই বলব পোডিয়াম ফিনিশের কথা ভেবো না। ম্যাচ বাই ম্যাচের কথা ভেবে ধাপে ধাপে এগিয়ে যাও।

২০১৬, ২০১৮-র চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি কিংবা ২০১৫, ২০১৭-তে ওয়ার্ল্ড লিগ ফাইনালস- উভয় আসরে ভারতীয় হকি দলের পারফরমেন্স আশা জাগাচ্ছে ধনরাজের মনে। সেই ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে পারলে পদক জয় অসম্ভব নয় বলেই মনে করেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক।