নিকাশি ব্যবস্থা বিশবাঁও জলে, নজর নেই প্রশাসনের

155

চোপড়া: নিকাশি ব্যবস্থা মুখ থুবরে পড়ায় সদর চোপড়ার একাধিক জায়গাতে বর্ষার আগেই জল জমে সমস্যা দেখা দিয়েছে। স্থানীয় পঞ্চায়েত প্রশাসনকে সমস্যার কথা জানিয়েও কাজ হচ্ছে না বলে অভিযোগ। এখনই নিকাশি সংক্রান্ত ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া না হলে বর্ষায় চরম দুর্ভোগের সম্মুখীন হতে হবে বলে আশঙ্কা করছেন বাসিন্দা ও ব্যবসায়ীরা।

চোপড়া হাটের মূল রাস্তার একাংশে অল্প বৃষ্টিতে জল জমে যাওয়ার ঘটনায় ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে বাসিন্দাদের। বৃষ্টির জল বের করার ব্যবস্থা না থাকায় জমা জল অনেকের বাড়িতে পর্যন্ত ঢুকে যাচ্ছে। এদিকে বিশেষ করে মাছের বাজারে জলকাদা জমে থাকায় কার্যত নরক দশা তৈরি হয়েছে। পাশাপাশি হাটের রাস্তা ও গুদরি বাজার এলাকায় নিকাশি ব্যবস্থা ভেঙে পড়ায় আপাতত জল বেরোনোর বিকল্প কোনও ব্যবস্থা নেই বলে অভিযোগ। চোপড়া বাজার এলাকার বাসিন্দা তথা ব্যবসায়ী গণেশ পাল সহ অনেকের অভিযোগ প্রায় সপ্তাহখানেক ধরে এভাবেই হাটে যাওয়ার মুখে প্রায় দেড়শ মিটার রাস্তার উপর জল জমে রয়েছে। সাধারণ মানুষকে পথ চলতে ভোগান্তির সম্মুখীন হতে হচ্ছে।

- Advertisement -

এক মাছ ব্যবসায়ী রবিন হালদার বলেন, ‘জলকাদা জমে থাকায় মাছের বাজারে ক্রেতারা অনেকেই আসতে দ্বিধা বোধ করেন। জমা জলে দুর্গন্ধ ছড়ানোর পাশাপাশি বাড়ছে মশা মাছির উপদ্রব। এ ব্যাপারে পঞ্চায়েত প্রশাসনের কোনও রকম ভ্রুক্ষেপ নেই।

যদিও স্থানীয় গ্রাম পঞ্চায়েত থেকে এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেওয়ার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। চোপড়া গ্রাম পঞ্চায়েতের উপপ্রধান জাহেদা খাতুন বলেন, ‘শীঘ্রই এলাকায় নতুন করে দু-একটি নিকাশি নালার কাজ শুরু করা হবে। পাশাপাশি সদর চোপড়ার সব এলাকার নিকাশি নালা সাফাইয়ের উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে।‘