পরিবর্তনের কারিগর রাহুল, সৌরভ নয়

নয়াদিল্লি : সাপে-নেউলে সম্পর্ক।

সুযোগ পেলে পালটা দিতে কেউই ছাড়েন না। এদিন যেমন সুযোগ হাতছাড়া করেননি গ্রেগ চ্যাপেল। ভারতীয় ক্রিকেটের সাম্প্রতিক সাফল্য প্রসঙ্গে কথা বলতে গিয়ে নাম উল্লেখ না করেও সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কে ঘুরিয়ে নিশানা করলেন। শিখণ্ডি প্রিয়পাত্র রাহুল দ্রাবিড়। গুরু গ্রেগের যুক্তি, ভারতীয় ক্রিকেটকে সৌরভ নন, বদলে দেওয়ার কারিগর দ্রাবিড়ই। বিদেশের মাটিতে টিম ইন্ডিয়ার লড়াকু মানসিকতার অন্যতম দিশারি ধরা হয় সৌরভকে। যদিও অজি কিংবদন্তি যাকে গুরুত্ব দিতে নারাজ।

- Advertisement -

গত অস্ট্রেলিয়া সফরে ভারতের সাফল্য, তরুণ ব্রিগেডের লড়াই চমকে দিয়েছিল। টিম ইন্ডিয়ার যে লড়াকু মানসিকতার কৃতিত্বটা ভারতের প্রাক্তন হেডকোচ গ্রেগ দিচ্ছেন দ্রাবিড়কেই। এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, ভারতের সাম্প্রতিক পারফরম্যান্সের অনেকাংশে কৃতিত্ব প্রাপ্য রাহুল দ্রাবিড়ের। ভারতীয় ক্রিকেটকে বদলে দিয়েছে ও। আমাদের (অস্ট্রেলিয়ার) ভাবনাটাকে কাজে লাগাছে দ্রাবিড়। কীভাবে ক্রিকেটার তুলে আনি আমরা, সেটা খুব ভালোভাবে অনুসরণ করেছে। সেটাই ভারতে বৃহৎ পরিসরে প্রয়োগ করছে।

অস্ট্রেলিয়া সফরের নির্ণায়ক ব্রিসবেন টেস্টে তরুণ ভারতের পারফরম্যান্সের প্রসঙ্গ টেনে চ্যাপেলের যুক্তি, ব্রিসবেন টেস্টে ভারতীয় একাদশে চোখ রাখুন। তিন-চারজন একদম নতুন। দ্বিতীয়সারির দল বলা হচ্ছিল। তবে এই ছেলেগুলি কিন্তু নিয়মিত ভারতীয় এ দলের হয়ে খেলে। দেশে তো বটেই ভারতের বাইরে যেকোনও বিভিন্ন পরিবেশে খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে।

চ্যাপেলের দাবি, ওদের আনকোরা বলা তাই ঠিক হবে না। বরং আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের জন্য রীতিমতো প্রস্তুত ছিল ভারতীয় দলে সুযোগ এই তরুণরা। অপরদিকে, আমরা উইল পুকোভস্কিকে দলে নিয়েছি শুধুমাত্র শেফিল্ড শিল্ডের পারফরম্যান্সের নিরিখে। ও অস্ট্রেলিয়ার বাইরে কোনওদিন খেলেওনি, যা ফারাক গড়ে দিয়েছে।