৭ রাজ্যে ১৮ রাজ্যসভা আসনে ভোট আজ

345

অনলাইন ডেস্ক: আজ সাত রাজ্যের ১৮টি রাজ্যসভা আসনে ভোট হতে চলেছে।

মার্চ মাসে ভোট হওয়ার কথা থাকলেও করোনা ভাইরাস ও লকডাউনের জেরে সে সময় ভোট স্থগিত রাখা হয়। অন্ধ্রপ্রদেশ ও গুজরাতে ৪টি করে আসনে ভোট হবে। মধ্যপ্রদেশ ও রাজস্থান ৩টি করে, ঝাড়খণ্ড ২টি এবং মণিপুর ও মেঘালয় ১টি করে আসনে ভোট হবে। এর মধ্যে রাজস্থান, মধ্যপ্রদেশ ও গুজরাত কড়া টক্করের সম্ভাবনা রয়েছে।

- Advertisement -

পাশাপাশি মণিপুরেও আসনেও জোরদার লড়াই হতে পারে। দিনকয়েক আগেই মণিপুরে বিজেপির তিন বিধায়ক কংগ্রেসে যোগ দেওয়ায় উত্তর-পূর্বের এই ছোট রাজ্যের দিকেও নজর থাকবে। বিজেপির তিন বিধায়ক ছাড়াও তিন মন্ত্রী এবং এনপিপির ৪, তৃণমূলের ১ ও ১ নির্দল বিধায়ক বিজেপি সরকারের উপর থেকে সমর্থন প্রত্যাহার করেছে। তাই এই রাজ্যের ১টি আসনে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের সম্ভাবনা রয়েছে। লিসেম্বা সঞ্জাওবাকে বিজেপি প্রার্থী করেছে। কংগ্রেসের হয়ে দাঁড়িয়েছেন টি মাঙ্গি বাবু।

এদিকে গুজরাতের ৪টি আসনের মধ্যে বিজেপি ৩ জন ও কংগ্রেস ২ জন প্রার্থী দিলেও শুধুমাত্র নিজেদের ভোটে প্রার্থীকে জেতানোর ক্ষমতা কারোরই নেই। মধ্যপ্রদেশও নিয়েও আগ্রহ থাকছে। মার্চে মধ্যপ্রদেশে হেভিওয়েট কংগ্রেস নেতা জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া সহ একাধিক কংগ্রেস বিধায়ক দলত্যাগ বিজেপিতে যোগ দেওয়ায় বেশ চাপে রয়েছে কংগ্রেস।

মধ্যপ্রদেশে ৩টি আসন থাকলেও বিজেপি এবং কংগ্রেস ২ জন করে প্রার্থী দাঁড় করিয়েছে। মধ্যপ্রদেশে বিজেপির হয়ে দাঁড়িয়েছেন জ্যোতিরাদিত্য সিন্ধিয়া ও সুমের সিং সোলাঙ্কি। কংগ্রেস প্রার্থী করেছে দিগ্বিজয় সিং ও দলিত নেতা ফুল সিং বাড়াইয়াকে। রাজস্থানেও ৩টি আসনের থাকলেও বিজেপি ও কংগ্রেস ২ জন করে প্রার্থী দিয়েছে।

ফেব্রুয়ারিতে নির্বাচন কমিশন ১৭টি রাজ্যের ৫৫টি শূন্য আসনে ভোটগ্রহণের ঘোষণা করে। মার্চে রিটার্নিং অফিসার জানিয়েছিলেন, ১০টি রাজ্যের ৩৭ আসনের প্রার্থীরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী হওয়ায় বাকি ১৮টি আসনের জন্য ভোটগ্রহণ হবে। তবে করোনা ভাইরাসের কারণেই মার্চ থেকে পিছিয়ে জুনে ভোট হচ্ছে।