নদী পেড়িয়ে হাসপাতালে হাতি, আতঙ্ক গ্রামে

64

বর্ধমান: ভোট রাজনীতির উত্তাপের মাঝেই হাতির হানায় আতঙ্ক ছড়াল পূর্ব বর্ধমানের আউশগ্রামে। দামোদর নদ পেরিয়ে বৃহস্পতিবার ভোরে আউশগ্রামে ঢুকে পড়ে একটি হাতি। গ্রামে ঢুকেই হাতিটি জামতাড়া গ্রামের ঘোষপাড়ায় একটি ধানের গোলা তছনছ করে দেয়। পাশাপাশি আউশগ্রাম-২ নম্বর ব্লক হাসপাতাল চত্বরেও হাতিটি তাণ্ডব চালায়। পরে বনদপ্তরের কর্মীরা সেখানে পৌঁছোয়। ততক্ষণে হাতিটি আউশগ্রামের হরগরিয়াডাঙ্গা এলাকার জঙ্গলে চলে যায়। রাত পর্যন্ত হাতিটিকে অন্যত্র সরিয়ে দেওয়ার তৎপরতা জারি রেখেছে বনদপ্তর।

রাতের অন্ধকারে ফের হাতিটি গ্রামে ঢুকে ক্ষয়ক্ষতি করতে পারে বলে আশঙ্কায় গ্রামবাসীরা। একই আশঙ্কায় বনকর্মীরাও। সেক্ষেত্রে হাতি তাড়াতে দুর্গাপুর থেকে ঐরাবত গাড়ি আনা হয়। অন্যদিকে, হাতির পায়ের ছাপ লক্ষ্য করে বনকর্মীরা রাত পর্যন্ত হাতিটির অবস্থান জানার চেষ্টা জারি রেখেছেন।

- Advertisement -

জামতাড়া গ্রামের বাসিন্দা চন্দ্রশেখর ঘোষ বলেন, ‘এদিন ভোর সাড়ে তিনটে নাগাদ হঠাৎই হাতিটি খামারবাড়িতে ঢুকে ধানের মড়াই ভেঙে বেশকিছু পরিমাণ ধান খেয়ে নেয়। বাকি ধান ফেলে নষ্ট করে দেয়।’ আউশগ্রাম-২ নম্বর ব্লক স্বাস্থ্য আধিকারিক শিবপ্রসাদ সাহা বলেন, ‘হাসপাতালের বাগানের পাশে থাকা দুটি পিলার ভেঙে দেওয়ার পর হাতিটি চলে যায়। পূর্ব বর্ধমান জেলা অতিরিক্ত বন আধিকারিক সারদা সাহা জানিয়েছেন,’ হাতিটিকে বাঁকুড়ার সোনামুখী জঙ্গলের দিকে তাড়িয়ে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা চলছে’।