ব্রাসেলস, ৩০ জানুয়ারিঃ নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন (সিএএ) বিরোধী প্রস্তাবের ওপর এখনই ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের পার্লামেন্টে ভোটাভুটি হচ্ছে না। মার্চ পর্যন্ত ভোটাভুটি স্থগিত করা হয়েছে। আর এর জেরে বিশ্বমঞ্চে সাময়িক স্বস্তি পেল ভারত। কূটনীতিকে কাজে লাগিয়েই ভারত ভোটাভুটি পিছিয়ে দিতে পেরেছে বলে মনে করছে ওয়াকিবহাল মহল।

ইউরোপিয়ান পার্লামেন্টের পাঁচটি গুরুত্বপূর্ণ দল সিএএ বিরোধীতায় প্রস্তায় এনেছিল। পার্লামেন্টের ৭৫১ সদস্যের মধ্যে ৫০০ জনের বেশি সদস্য এই দলগুলিতে রয়েছে। ভোটাভুটির জন্য প্রস্তাবটি তোলা হলে উপস্থিত ৪৮৩ জন সদস্যের মধ্যে ২৭১ জন ভোটাভুটি স্থগিত করার পক্ষে মত দেন। ১৯৯ জন প্রস্তাব নিয়ে ভোটাভুটিতে সায় দেন। ১৩ জন মতামত দেননি। বিশেষজ্ঞদের মতে, সময় হাতে পাওয়ায় লাভ হবে দিল্লির। ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের পার্লামেন্টের সিএএ বিরোধী সদস্যদের কাছে গিয়ে বোঝাতে পারবেন দিল্লি, যা ভবিষ্যতে ভোটাভুটির সময় প্রভাব ফেলতে পারে। সিএএ পাশ ভারতে নাগরিকত্বের ক্ষেত্রে বিপজ্জনক পদক্ষেপ। এই মর্মে সিএএ বিরোধী প্রস্তাব আনেন  ইউরোপিয়ান পার্লামেন্টের অধিকাংশ সদস্য। বিষয়টি ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয় বলে পালটা বার্তা দেয় দিল্লিও।