নয়াদিল্লি, ১৭ মেঃ চিটফান্ড কাণ্ডে কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমারের উপর থেকে রক্ষাকবচ সরিয়ে নিল সুপ্রিমকোর্ট। সর্বোচ্চ আদালতের প্রধান বিচারপতি রঞ্জন গগৈয়ের নেতৃত্বাধীন তিন জন বিচারপতিকে নিয়ে গঠিত বেঞ্চ সর্বসম্মতভাবে জানিয়ে দিল, রাজীব কুমারকে গ্রেফতার করা যাবে না বলে যে অন্তবর্তী রক্ষাকবচ দেওয়া হয়েছিল তা প্রত্যাহার করে নেওয়া হল। সিবিআই তাঁর বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে পারে। সেক্ষেত্রে সাত দিনের মধ্যে অন্তর্বর্তী জামিনের আবেদন করতে পারবেন রাজীব কুমার। সাত দিনের মধ্যে তাঁকে গ্রেফতার করা যাবে না। 

প্রসঙ্গত, চিটফান্ড কেলেঙ্কারিতে কলকাতার প্রাক্তন পুলিশ কমিশনারের বিরুদ্ধে তদন্ত করছিল সিবিআই। সিবিআইয়ের যেসব অভিযোগ ছিল রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে তা হল, এসআইটি-র প্রধান থাকার সময় তথ্যপ্রমাণ লোপাট করার অভিযোগ। এছাড়া, সিবিআই ফোনের কথোপকথনের যে কল রেকর্ড চেয়েছিল সেই কল রেকর্ডও বিকৃত করে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। এই নিয়ে রাজীবকে শিলংয়ে জেরাও করে সিবিআই। কিন্তু সিবিআইয়ের জেরায় হয় তিনি প্রশ্নের উত্তর দেননি নতুবা এড়িয়ে গিয়েছিলেন। সিবিআইয়ের পক্ষে সলিসিটর জেনারেল আর্জি জানিয়েছিলেন, রাজীবকে হেপাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য। ৩ ফেব্রুয়ারি লাউডন স্ট্রিটের বাংলোয় রাজীবকুমারকে গ্রেফতার করতে যায় সিবিআই। কিন্তু সেখানে পুলিশের সঙ্গে ধুন্ধুমার বেধে যায়। সিবিআইয়ের কাজে হস্তক্ষেপ করারও অভিযোগ ওঠে। এরপরই সিবিআইয়ের তরফে রাজীবের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়, যার শুনানি চলছিল। গত ২ মে রায়দানের কথা থাকলেও তা পিছিয়ে যায়। আজ, রায় ঘোষণা করল সুপ্রিমকোর্ট।